E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

পাথরঘাটায় বৃদ্ধকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন

২০১৮ মার্চ ১২ ১৭:১২:১৬
পাথরঘাটায় বৃদ্ধকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন

পাথরঘাটা (বরগুনা) প্রতিনিধি : জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে বরগুনার পাথরঘাটায় ৮০ বছরের এক বৃদ্ধকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

রবিবার সন্ধ্যা ৬ টার দিকে উপজেলার পাথরঘাটা সদর ইউনিয়নের হরিণঘাটা বাজার এবং পর্যটন কেন্দ্রর নিকটে এঘটনা ঘটে।

আহত বৃদ্ধ আঃ আজিজকে পাথরঘাটা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সদর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের সেকান্দার আলী মুন্সির ছেলে মজিবর মুন্সির বিরুদ্ধে এ অভিযোগ ওঠেছে। এ ব্যাপারে পাথরঘাটা থানায় একটি সাধারন ডাইরী করা হয়েছে।

হরিনঘাটা বাজারের কয়েকজন ব্যাসায়ী মকবুল মিয়া, সিদ্দিক দফাদার, ও ছগির মিয়া জানান, আঃ আজিজ এর জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষ মজিবর মুন্সিসহ ৩৪ জনের বিরুদ্ধে কোর্টে মামলা করে। এর জের ধরে মজিবর মুন্সী বাজারের মধ্যে হাবিব মিয়ার দোকানের সামনে আঃ আজিজকে শরীরের সকল জামাকাপর ও পরিহিত লুঙ্গী খুলে মারধর করেছে। এসময় বাজারের শতাধিক লোক ঘটনাটি প্রত্যক্ষ করেন। পরে সিদ্দিক দফাদার তাকে উদ্ধার করে পাথরঘাটা হাসপাতালে ভর্তি করিয়েছেন।

এলাকাবাসী জানান, এই মজিবর মুন্সি এলাকার বড় একজন অপরাধী,জেলেদের মাছ ক্রয় করে টাকা না দিয়ে হয়রানি করা,শারিরিক নির্যাতন করা, মানুষের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপবাদ দেয়া। এলাকার সাবেক ইউপি সদস্য হালিমের ভাই হওয়ার সুবাদে এমন কোন কোন অপরাধ নেই যে অপরাধের সাথে এই মজিবর মুন্সি জরিত নয়। এমন কোন অপরাধ নাই যা এই মজিবর মুন্সি করে নাই। এলাকার নিরিহ মানুষকে মথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করা মোটা অংকের চাঁদা দাবী করা, গায়ের জোরে মানুষকে নাজেহাল করা মানুষের ন্যায্য পাওনা থেকে বঞ্চিত করা। পর্যটকরা পর্যটন কেন্দ্রে ঘুরতে গেলে তাঁদের নাজেহাল করে নগদ টাকা, দামী মোবাইল হাতিয়ে নেওয়া। গোপনে পর্যটন কেন্দ্রে গিয়ে গাছের আড়ালে গিয়ে ঘুরতে আসা ছেলে মেয়দেরে ছবি তুলে তাদের কাছে মোটা অংকের চাঁদা দাবী করা এবং শর্ত সাপেক্ষে তাঁ আদায় করা।এলকার জঘন্য তম সকল অপরাধ সংঘটিত হয় এই মজিবর মুন্সির দ্বারা।

নাম নাপ্রকাশের শর্তে এলাকবাসী জানান, বড় অপরাধ মানেই মজিবর মুন্সি।

এ ব্যাপারে মজিবর মুন্সি জানান, আমার বেয়াই হিসাবে আমি আজিজ মুন্সীর সাথে মসকারা করেছি। তেমন কোন অপরাধ করেছি বলে মনে করিনা এতে যদি কারও কিছু করার থাকে তা যেন করে।

পাথরঘাটা থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক (এএসআই) শহিদুল ইসলাম জানান, এ ব্যাপারে প্রাথমিক ভাবে সাধারণ ডাইরী করা হয়েছে। ঘটনা তদন্ত করে সত্যতা পেলে এজাহার নিয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

(এটি/এসপি/মার্চ ১২, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test