E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

চাঁদপুরে ভুয়া সচিব বাবু নকতিকে কারাগারে প্রেরণ

২০১৮ এপ্রিল ২২ ২২:২৫:৪৬
চাঁদপুরে ভুয়া সচিব বাবু নকতিকে কারাগারে প্রেরণ

উজ্জ্বল হোসাইন, চাঁদপুর : চাঁদপুরে ভুয়া সচিব সেজে স্বাক্ষর জালিয়াতি করে সরকারি কর্মচারীকে অন্যত্র বদলী করার নামে অর্থ আত্মসাৎ করার মামলায় বাবু নকতি (৪৪) নামে এক ভুয়া উপ-সচিবকে চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশ আটক করেছে।

এ ব্যাপারে পুলিশী জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাকে রোববার বিকেলে পুলিশ চাঁদপুর আদালতে প্রেরণ করলে বাবু নকতি আদালতে ১৬৪ ধারায় তার প্রতারণার কথা স্বীকার করে জবানবন্দি দেয়। পরে ঘটনা সম্পর্কে অবগত হয়ে আদালত তার জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠিয়ে দেয়।

গত শনিবার গভীর রাতে চাঁদপুর মডেল থানার উপ-পরিদর্শক মোঃ মাহবুবুর রহমান ম-ল তাকে ফরিদগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম এখলাসপুর নকতি বাড়ি থেকে আটক করে। আটক বাবু নকতি এখলাসপুর গ্রামের বদিউজ্জামানের ছেলে।

চাঁদপুর মডেল থানা সূত্রে জানা যায়, ভুয়া উপ-সচিব দানকারী বাবু নকতি চাঁদপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের এলএলএসএস আবুল হোসেনকে অন্যত্র বদলী করার নাম করে তার কাছ থেকে নগদ অর্থ হাতিয়ে নেয়। সে মতে সে আবুল হোসেনকে বদলীর জন্যে বিভিন্ন ভুয়া কাগজপত্র তৈরি করে সচিবালয়ের সিনিয়ার সহকারী সচিব সেজে ওই কাগজপত্রে স্বাক্ষর করে। ওইসব কাগজপত্রের নিচে সচিবের নাম লেখা ছিলো মোঃ ফজলুল হক। চাঁদপুর আদালত থেকে তার বদলীর কাগজপত্র পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর জানা যায় এটি ভুয়া পত্র।

পরে সচিবালয়ে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, এ নামে কোনো সচিব সেখানে নেই। তারই প্রেক্ষিতে গত ১৫ এপ্রিল ভুয়া সচিব বাবু নকতির বিরুদ্ধে চাঁদপুর মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। এ মামলা তদন্ত করে চাঁদপুর মডেল থানার উপ-পরিদর্শক মাহবুবুর রহমান মন্ডল দেখতে পান এটি একটি ভুয়া সচিব পরিচয় দান করে প্রতারণা করা হয়েছে। তাৎক্ষণিক ভুয়া সচিব নামধারী ব্যক্তিকে আটক করে চাঁদপুর মডেল থানায় নিয়ে আসেন।

এ ব্যাপারে উপ-পরিদর্শক মাহবুবুর রহমান মন্ডল জানান, তদন্ত শেষে যখন জানতে পারি যে, ঘটনাটি ভুয়া, তখন অভিযান চালিয়ে তাকে আদালতে প্রেরণ করি। আদালতে বাবু নকতি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছে। পরে তাকে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।

(ইউএইচ/এসপি/এপ্রিল ২২, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test