E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

ধামরাইয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের সপ্তাহব্যাপী বার্ষিক ধর্মীয় উৎসব 

২০১৮ এপ্রিল ২৭ ১৫:৫০:০৫
ধামরাইয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের সপ্তাহব্যাপী বার্ষিক ধর্মীয় উৎসব 

দীপক চন্দ্র পাল, ধামরাই (ঢাকা) : মাধব মন্দির অঙ্গনে এদেশের অন্যতম তীর্থস্থান ধামরাইয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উপাশনালয় চার শতাধিক বছরের পুরোনো ঐতিহ্যবাহী রথ ও মাধব মন্দির সংকীর্ত্তন কমিটির আয়োজনে ১৭৪ তম সপ্তাহ ব্যাপী বার্ষিক মহানামযজ্ঞ, অষ্টকালীন লীলা কীর্ওন,মহোৎসব ও তার মেলা বৃহস্পতিবার দিবাগত মধ্য রাত থেকে হয়েছে।

মাধব মন্দির সংকীর্ত্তন কমিটির সভাপতি সমাজ সেবক শ্রী প্রাণ গোপাল পালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই উদ্ধোধনী সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ পুজা উদ্যাপন পরিষদের ধামরাই উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক শিক্ষক শ্রী নন্দ গোপাল সেন।

এ সভায় আরো বক্তব্য রাখেন উৎসব কমিটির সাধারন সম্পাদক শ্রী ভজন সুত্রধার, মুক্তিযোদ্ধা শ্রী কল্যাণ ব্রত সরকার, শ্রী জগদিশ সরকার,মন্দির ও রথ ও উৎসব কমিটির প্রচার সম্পাদক সাংবাদিক দীপক চন্দ্র পাল, উৎসবে হাজারো ভক্তবৃন্দর উপস্থিতিকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তা বিষয়ে পুলিশ প্রশাসন কড়া নিরপত্তা ব্যবস্থা নিয়েছে বলে জানান বাংলাদেশ পুজা উদ্যাপন পরিষদের ধামরাই উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক শিক্ষক শ্রী নন্দ গোপাল সেন।

মাধব মন্দির সংকীর্ত্তন কমিটির সভাপতি সমাজ সেবক শ্রী প্রাণ গোপাল পাল বলেন বার্ষিক এই উৎসবে প্রতি বছরের মতো এবারো দেশের ভিভিন্ন স্থান আটটি প্রখ্যাত কীর্তনিয়া দল অংশ নিবে। উৎসবের সবচেয়ে আকর্ষণীয় ভগবান শ্রীকৃঞ্চের লীলা স্মরণ উৎসব ও কীর্তন পরিবেশন করবেন টাংগাইল জেলার পাক্কুল্লার দুলাল চক্রবর্তী,বগুড়ার পুস্প রানী দাস ও শ্রীমতি তৃঞ্চা দেবনাথ ।

৩০ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হবে উৎসবের সবচেয়ে আর্কষণীয় অনুষ্ঠান ভগবান শ্রীকৃঞ্চের লীলা কীর্তন পালা।

উৎসব কমিটির সভাপতি প্রান গোপাল পাল আরো বলেন উৎসবের এ কয় দিন শতাধিক মন চাল-ডাল রান্নার আয়োজন রাখা হয়েছে আগত হাজারো ভক্ত-নর নারীদের মাঝে,উৎসবের এ কয়দিন প্রসাদ বিতরন করা হবে।

২ মে সব শেষে উষালগ্নে ভক্ত নারী-পূরুষের নিয়ে বের করা হবে নগর কীর্ত্তন। এলাকার প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে দেশ ও জাতির মংগল প্রার্থনার আয়োজন করা হবে। ওই সকাল দশটায় রাধা কৃঞ্চের নৌকাবিলাশ ও পালা কীর্ত্তন অনুিষ্ঠত হবে।

বিকেলে জলকেলী, কুঞ্জ ভংগের মধ্য দিয়ে সাতদিন ব্যাপী ধর্মীয় উৎসবের পরিসমাপ্তি হবে বলে জানিয়েছেন উৎসব কমিটির সভাপতি প্রান গোপাল পাল ও সাধারন সম্পাদক ভজন সুত্রধর।

বাৎসরিক এই চব্বিশ প্রহর উৎসব উপলক্ষে আলোক সজ্জা করা হয়েছে, মন্দিরের বাহিরে বহু দোকান প্রসার বসেছে। হাজারো ভক্ত নর-নারীর মিলন মেলায় এই উৎসবকে কেন্দ্র করে উৎসব মুখর পরিবেশ বিরাজ করছে ধামরাই এলাকায়।


(ডিসিপি/এসপি/এপ্রিল ২৭, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test