E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

ইয়াবা সেবনে বাধা, মাদক ব্যবসায়ীর হাত ধরে পালাল স্ত্রী!

২০১৮ জুন ০৯ ১৫:১৬:৪৪
ইয়াবা সেবনে বাধা, মাদক ব্যবসায়ীর হাত ধরে পালাল স্ত্রী!

স্টাফ রিপোর্টার : ইয়াবা সেবনে বাধা দেয়ায়, ঢাকার সাভারে মাদক ব্যবসায়ীর হাত ধরে পালিয়ে গেছে এক গৃহবধূ। জানা গেছে, ওই নাম শরিফা আক্তার। তিনি সাভারের ব্যবসায়ী রাজ্জাক সিকদারের স্ত্রী। ঘটনাটি প্রকাশ পেতেই ওই এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ঢাকার সাভার পৌর এলাকার ডগরমোড়া মহল্লায় এই চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে।

এ ঘটনায় ওই গৃহবধূর স্বামী ব্যবসায়ী রাজ্জাক সিকদার সাভার ও আশুলিয়া থানায় শুক্রবার (৮ জুন) দুটি পৃথক অভিযোগ করলে পুলিশ তা সাধারণ ডায়েরি করে মামলা তদন্ত করছে।

রাজ্জাক সিকদার বলেন, সাভার পৌর এলাকার ডগরমোড়াস্থ একটি বাড়িতে পরিবারসহ ভাড়া থাকেন তিনি। আমার দ্বিতীয় স্ত্রী ছিল শরিফা আক্তার মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলার আজিমপুর গ্রামের ফেলু ফকিরের মেয়ে। প্রায় ১১ বছর আগে তাদের বিয়ে হয়। শরিফুল নামের তাদের ১০ বছরের একটি পুত্রসন্তানও রয়েছে। তিনি আরো বলেন, ফরহাদ হোসেন মিন্টু নামের এক মাদক ব্যবসায়ী সাবলেট হিসেবে বাড়িতে বসবাসের সুযোগ নিয়ে আমার স্ত্রী শরিফা আক্তারের সঙ্গে গোপন সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন।

তিনি বলেন, আমার ছেলে শরিফুলের কাছ থেকে আমি তাদের অবৈধ সম্পর্কের কথা জানতে পারি। পরবর্তীতে খোঁজখবর নিয়ে জানতে পারি যে, মাদক ব্যবসায়ী ফরহাদের সঙ্গে বসে ইয়াবা ট্যাবলেট গ্রহণ করে সে। এরপর আমি এটার প্রতিবাদ করি ও স্ত্রীকে সাবধান করে দেই এবং ফরহাদকে এলাকা ছেড়ে চলে যেতে বলি। পরে যদি তারা আবার মেলামেশা বা মাদক সেবন করলে তাদের দুজনকে আইনের আওতায় আনার হুমকি দেই।

রাজ্জাক সিকদার বলেন, বৃহস্পতিবার (৭ জুন) রাতে কাউকে কিছু না বলে আমার স্ত্রী মাদক ব্যবসায়ী ফরহাদ হোসেন মিন্টুর হাত ধরে চলে যায়। এ সময় সে আমার বাড়ি থেকে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকারসহ ঘরের মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে গেছে। এ ঘটনার পর আমি সাভার ও আশুলিয়া থানায় পৃথক দুটি অভিযোগ দায়ের করেছি।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, জামালপুরের মেলান্দহ থানাধীন চিনিতলা গ্রামের শাহজাহান খানের ছেলে ফরহাদ হোসেন মিন্টু এলাকায় জামায়াতের রাজনীতির সঙ্গে সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিল। স্থানীয় থানায় তার নামে হরতালে গাড়ি ভাঙচুর, চেক জালিয়াতিসহ অন্তত চারটি মামলা রয়েছে। এলাকা থেকে পালিয়ে এসে সে সাভার এলাকায় রাজ্জাক সিকদারের ফ্ল্যাটে সাবলেট ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করে। একটা সময় রাজ্জাক সিকদারের স্ত্রীর সঙ্গে অবৈধ সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন তিনি।

পুলিশ সূত্রে খবর অনুযায়ী জানা যায়, ফরহাদ হোসেন মিন্টু মাদক আসক্ত ও ইয়াবা ব্যবসায় জড়িত ছিল। সাইফুল ও লিটন নামের তার গ্রাম সম্পর্কের দুই ভাতিজাকে দিয়ে সাভার, আশুলিয়াসহ এর আশপাশের এলাকায় ইয়াবা ট্যাবলেটের বিক্রির ব্যবসা করতো ফরহাদ।

এ বিষয়ে সাভার মডেল থানার ওসি মোহসিনুল কাদির বলেন, স্ত্রী পালিয়ে যাওয়ার ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি হয়েছে। এ ব্যাপারটি ভালো ভাবে খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

(টি/এসপি/জুন ০৯, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২২ নভেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test