E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

সাভার রেজিস্ট্রি অফিসে দুদকের তল্লাশী

২০১৮ জুলাই ২৫ ১৫:৪৫:৩২
সাভার রেজিস্ট্রি অফিসে দুদকের তল্লাশী

স্টাফ রিপোর্টার : সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে বিভিন্ন ধরনের অনিয়ম ও দুর্নীতি প্রতিরোধ করতে দুর্নীতি দমন কমিশনের প্রধান কার্যালয়ের টিম তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করেছে। দুদকের এমন ঝটিকা অভিযানে সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের কর্মকর্তা কর্মচারী ও দলিল লেখকসহ নকলনবীসদের মাঝে আতংক ছড়িয়ে পড়ে।

দুদকের সমন্বিত জেলা-১ এর সহকারী পরিচালক জাহাঙ্গীর আলমের নেতৃত্বে মঙ্গলবার সকাল থেকে দুপুর ২ টায় পর্যান্ত এ অভিযান পরিচালনা করা হয়।

একটি টিম টানা দুই ঘন্টারও বেশী সময় ধরে এ অভিযান চালায়। এসময় তারা সাব-রেজিস্ট্রার আবু তালেব সরকারের সঙ্গে কথা বলে সরকারের মোটা অঙ্কের রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে ইতিপূর্বে সম্পাদিত বেশ কয়েকটি দলিলের ব্যাপারে খোঁজখবর করেন।

এছাড়া সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসের ভেতরকার মসজিদের নামে টাকা তোলার ব্যাপারেও তারা খোঁজখবর করেন। দুদক সদস্যরা মসজিদের ভিতরে দানবাক্স না বসানোর জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেন।
সূত্র মতে, দুদকের হটলাইন ‘১০৬’-কল করে জনৈক ব্যক্তি সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে দুর্নীতি অনিয়মের অভিযোগ করলে দুদকের মহাপরিচালক (এনফোর্সমেন্ট) মনির চৌধুরীর নির্দেশে এই অভিযান পরিচালিত হয়।

অভিযানে দুদক সদস্যরা সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের অনিয়মের ব্যাপারে প্রাথমিক খোঁজখবর করেন। পর্যায়ক্রমে যেকোনো সময় অভিযান এবং ‘আন্ডারভ্যেল্যু’ দলিল তলব করে পর্যালোচনা করা হবে বলেও তারা সাব-রেজিষ্ট্রুারকে জানিয়ে দেন।

অপর একটি সূত্র জানায়, সাভার সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসে অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে সরকারের কোটি কোটি টাকা রাজস্ব ফাঁকির তদন্ত করছে দুদক।

সেইসঙ্গে বেশ কয়েকজন দলিল লেখক, উমেদার, নকল নবীশ কারক ও পিয়নের আয়ের সঙ্গে সঙ্গতিবিহীন সম্পদের অনুসন্ধানের কাজ চলছে।

এ অবস্থায় মঙ্গলবার প্রথমবারের মতো ঝটিকা অভিযান চললেও গোপনে কাজ করছে দুদকের একাধিক টিম। যেকোনো সময় বড় ধরনের অভিযান ও সংশ্লিষ্টদের তলবের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানা গেছে।
সাভার সাব-রেজিস্ট্রার মো: আবু তালেব সরকার জানান, দুদকের টিম অফিসে প্রবেশ করে বিভিন্ন ধরনের কাগজপত্র তল্লাশী করে দেখেন এবং কিছু নোট করে নিয়ে যান।

পরে যাবার পথে সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের দলিল সম্পাদান করতে কোন ধরনের অনিয়ম ও দুর্নীতি যেন না হয় সেদিক লক্ষ্য রেখে কাজ করতে নির্দেশ দেওয়া হয় বলে জানান তিনি।

দুদক টিম সকাল ১০ টারদিকে সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের সামনে এসে সিভিল পোশাকে সাধারন মানুষ ও দলিল লেখকদের সাথে সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের দুর্নীতি ও অনিয়মের বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন বলে জানা যায়।

পরে দুদক টিমটি পুলিশ প্রটোকল নিয়ে বেলা সাড়ে ১২ টারদিকে সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের ভিতরে প্রবেশ করেন। এসময় দলিল সম্পাদানসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে সাব-রেজিস্ট্রিারের সঙ্গে দীর্ঘক্ষণ আলোচনা করে দুদক টিম।

তারা সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের ভিতরের দলিল সম্পাদান করা রের্কড রুমে সম্পাদানকারী দলিল তল্লাশী করেন। তারা সেখানে ফিস ও প্রে-অর্ডার নথিপত্র দেখেন এবং কিছু নোট করে নিয়ে যান বলে জানা যায়।
সাভার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে অভিযানের পর দুদক টিম সাভার দলিল লেখক কল্যাণ সমিতির সভাপতি আবুল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক মো: আব্দুল আলীমের অফিসে অভিযানে যায়। কিন্তু তারাসহ দলিল লেখক সমিতির সকল কর্মকর্তা সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে দুদকের অভিযান আঁচ করতে পেরে তাদের অফিস

থেকে চলে যায় বলে একাধিক দলিল লেখক জানিয়েছেন। এ প্রতিবেদক সরেজমিনে গিয়েও তাদের দেখতে পাননি।

এ ব্যাপারে সাভার সাব-রেজিস্ট্রার আবু তালে সরকার দৈনিক ফুলকিকে নিশ্চিত করে বলেন, দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে সহকারী পরিচালক মো: জাহাঙ্গীর আলমের নেতৃত্বে দু’জন অফিসার ভিতরের প্রবেশ করে।

পরে তারা আমাদের অফিসের কিছু দলিল সম্পাদনসহ বিভিন্ন নথিপত্র দেখতে চায়। পরে তারা দলিল সম্পাদন করে রেখে দেওয়া স্টাক রুমের ভিতরে প্রবেশ করে দলিল তল্লাশীসহ বিভিন্ন নথি দেখে নোট করে নিয়ে যান।

(টি/এসপি/জুলাই ২৫, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test