E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

শিরোনাম:

রাঙ্গাবালীতে ওসি মিলনের সফল অভিযানে গা ঢাকা দিয়েছে মাদকসম্রাট, সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজরা

২০১৮ আগস্ট ১২ ১৭:০১:০৮
রাঙ্গাবালীতে ওসি মিলনের সফল অভিযানে গা ঢাকা দিয়েছে মাদকসম্রাট, সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজরা

সঞ্জিব দাস, গলাচিপা (পটুয়াখালী) : পটুয়াখালীর যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এর বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়েছে এলাকার টেন্ডারবাজ, চাঁদাবাজ ও মাদক সিন্ডিকেট গ্রুপ এ সিন্ডিকেটের হোতারা ওসিকে ম্যানেজ করতে না পারায় একাধিক মানুষের নাম দিয়ে সাংবাদিকদের ভুল তথ্য দিয়ে সংবাদ পরিবেশন করায় ভুক্তভোগীদের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন, রাঙ্গাবালী থানার ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্র গত আট মাস যাবত থানায় যোগদান করার পর থেকে রাঙ্গাবালীতে মারা-মারি, কাটা-কাটি, অন্যের ধান লুট করা, মাদক সহ বিভিন্ন নেশাগ্রস্ত মানুষের সমস্ত কার্যকলাপ বন্ধ হয়ে গেছে এবং এর আওতায় যারা ছিল তাদেরকে তিনি গ্রেপ্তার করেছেন। তাদের স্বার্থে হানী লাগায় তারা ওসির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত রয়েছে।

স্থানীয় ব্যাবসায়ীদের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন, ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্র রাঙ্গাবালী থানায় আসার পরে আমরা সুন্দরভাবে ব্যাবসা বানিজ্য করতে পারি, তিনি আমাদের প্রশাশনিকভাবে সহায়তা প্রদান করেন।

এ বিষয়ে রাঙ্গাবালী উপজেলা আওয়ামী যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক মু. মিলন খলিফা বলেন, আমার জীবনে আগে-পরে অনেক ওসি দেখেছি কিন্তু মাত্র আট মাসে রাঙ্গাবালীর রূপ-রেখা পাল্টে দিয়েছেন এই ওসি বিশেষ করে মাদক বিরোধী অভিযানে ও সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানে তিনি শতভাগ সফল হয়েছেন। তিনি আরও বলেন, রাঙ্গাবালী থানা এখন দালাল ও দুর্নীতি মুক্ত।

রাঙ্গাবালী উপজেলা আওয়ামী লীগ ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মু. শামসুদ্দিন আবু মিয়া বলেন, এই ওসি রাঙ্গাবালী উপজেলায় মাদক, সন্ত্রাস, চুরি, ডাকতি ও চাঁদাবাজি কমে গেছে। কিছু স্বার্থান্বেষী বিএনপি-জামাত এর কুচক্রী মহল এই ওসির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত রয়েছে।

এ ব্যাপারে রাঙ্গাবালী ইউপি চেয়ারম্যান সাইদুজ্জামান মামুন খাঁন বলেন, ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্র রাঙ্গাবালী থানাকে একটি ডিজিটাল থানায় রূপান্তরিত করার জন্য উপজেলার আইন শৃঙ্খলা সহ মাদক নিয়ন্ত্রন অভিযানে ব্যাপক ভূূমিকা রেখেছেন এবং অনিয়মকে বর্জন করায় কিছু কু-চক্রী মহল তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে।

এ বিষয়ে রাঙ্গাবালী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. দেলোয়ার হোসেন জানান, রাঙ্গাবালী থানার ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্র আসলেই একজন ভালো মানুষ। বিএনপি ও জামাতের কিছু লোকজন সাংবাদিকদের ভুল তথ্য দিয়ে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা ও বানোয়াট চাঁদা নেয়ার সংবাদ পত্রিকায় প্রকাশ করে তাকে হেয় প্রতিপন্ন করেছে। তিনি আসার পর থেকে চাঁদাবাজ, সন্ত্রাসী ও মাদকের সিন্ডিকেটরা এখন গা ঢাকা দিয়েছে। ওরাই এখন এই ওসি মিলন কৃষ্ণ মিত্রের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে।

এ বিষয়ে রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিলন কৃষ্ণ মিত্র এ প্রতিবেদককে জানান, আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র চলছে, আমাকে এখান থেকে অপসারন করতে পারলেই ওরা এখানে মাদক, সন্ত্রাস, চাঁদাবাজি সহ বিভিন্ন অপরাধ কর্মকান্ড চালিয়ে যেতে পারে।

(এসডি/এসপি/আগস্ট ১২, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test