Pasteurized and Homogenized Full Cream Liquid Milk
E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

অধ্যক্ষকে মারতে মারতে মাটিতে ফেললেন ছাত্রলীগ সভাপতি

২০১৯ সেপ্টেম্বর ১০ ১৭:৪২:১৩
অধ্যক্ষকে মারতে মারতে মাটিতে ফেললেন ছাত্রলীগ সভাপতি

রঘুনাথ খাঁ, সাতক্ষীরা : সাতক্ষীরার আশাশুনি সরকারি কলেজ অধ্যক্ষকে তিন দফা মারধর ও লাঞ্ছিত করে তার অফিস কক্ষ ভাংচুরের ঘটনায় কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতিসহ দু’ ছাত্রকে আটক করেছে পুলিশ।

আটককৃতরা হলেন, আশাশুনি সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি তানভীর আহমেদ তাজ(২১) আশাশুনি সদরের বদিউজ্জামান মন্টুর ছেলে ও তার সহযোগী মামুন(২০)।

কলেজ সূত্রে জানা গেছে, শনিবার সন্ধ্যায় কলেজ অধ্যক্ষ তার কয়েকজন সহকর্মীকে সাথে নিয়ে নিজ কক্ষে অফিসিয়াল কাজ করছিলেন। এ সময় এক যুবক এসে তাকে সালাম দিয়ে একটু রুমের বাইরে আসতে বলে। বাইরে আসার পরপরই তার সামনে আরেকটি ছেলেকে তারা মারধর করতে থাকে। তিনি বিষয়টি কী তা জানতে চাইলে তারা জানায় সে সাতক্ষীরা থেকে একটি মেয়েকে এনে কলেজ ক্যাম্পাসের মধ্যে ঢুকে অনৈতিক আচরন করেছে। অধ্যক্ষ ছেলেটিকে মারধর না করে তার কাছে দিতে বলেন। এ সময় তিনি তার অভিভাবকদের ফোন করে ডেকে আনেন। একই সময়ে সেখানে পুলিশও পৌছায় । পরে পুলিশ থানায় এনে মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয় অজ্ঞাত পরিচয় ছেলেটিকে।

ছেলেটিকে তাদের হাতে কেনো দেওয়া হলো না এই কৈফিয়ত তলব করে তার ওপর হামলা করে কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি তাজ ও তার সহযোগী শাওন, আল মামুন ও সাইফুল্লাহসহ ৭/৮ জন ছাত্রলীগ ক্যাডার। এ সময় তারা ভাংচুর করে অধ্যক্ষের কক্ষ, জানালার গ্লাস, চেয়ার টেবিল। ইটপাটকেল ছোড়ে তারা। পরপর তিনবার তিনি এই হামলার শিকার হন।

এ ঘটনায় সোমবার সন্ধ্যায় ভুক্তভোগী অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান আশাশুনি থানায় ৯ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় একটি মামলা দায়ের করেন যার নং- ১০। উক্ত মামলায় ওই রাতেই কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি তানভীর আহমেদ তাজ ও তার সহযোগী মামুন কে আটক করে পুলিশ।

আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুস সালাম জানান, অধ্যক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনায়স্থল পরির্দশ করে ঘটনার সত্যতা পাওয়ার পর কলেজ অধ্যক্ষ মামলা দিয়ে তাজ ও মামুনকে আটক করা হয়েছে। বাকীদের আটকের চেষ্টা চলছে।

(আরকে/এসপি/সেপ্টেম্বর ১০, ২০১৯)

পাঠকের মতামত:

২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test