Pasteurized and Homogenized Full Cream Liquid Milk
E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

উপ-নির্বাচন না পেছালে রংপুরে দূর্গা পূজা বর্জণের ঘোষণা

২০১৯ সেপ্টেম্বর ১৭ ১৮:৪৫:১১
উপ-নির্বাচন না পেছালে রংপুরে দূর্গা পূজা বর্জণের ঘোষণা

রংপুর প্রতিনিধি : আগামী ৫ অক্টোবর হিন্দু সম্প্রদায়ের দুর্গাপুজার সপ্তমির দিন রংপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচনের তারিখ পেছানো না হলে রংপুর জেলা ও মহানগরে আসন্ন দূর্গা পূজা বর্জণের ঘোষণা দিয়েছেন বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ রংপুর জেলা ও মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দ। সেই সাথে দাবি আদায়ে তারা অনশন, অবস্থান ধর্মঘট, নির্বাচন বর্জনসহ রংপুর অচল করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছেন। মঙ্গলবার বিকেলে রংপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সন্মেলনে এই ঘোষনা দেন তারা। এর আগে সকালে একই দাবিতে জেলা ও মহানগর কমিটি পৃথক স্থানে মানব বন্ধন ও সমাবেশ করেছে।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, গত ১৪ জুলাই জাপা চেয়ারম্যান এরশাদের মৃত্যুর পর রংপুর-৩ (সদর) আসনটি শূণ্য ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশন। এরপর নিয়মানুযায়ী আগামী ৫ অক্টোবর মধ্যে ওই শূণ্য আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠানের তারিখ নির্ধারণ করেন নির্বাচন কমিশন। কিন্তু ওদিনই রয়েছে সনাতন সম্প্রদায়ের মহাসপ্তমী পূজা। ওই দিন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলে সীমাহীন সমস্যার মুখে পড়বে সনাতন সম্প্রদায়ের মানুষ।

এমন কিছু স্কুল কিংবা স্থান রয়েছে, যেসব স্কুল ও স্থানে পুূজা অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। তাছাড়া নির্বাচনের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে স্থানীয় আইন শৃঙ্খলা বাহিনীও ব্যস্ত থাকবেন। এতে করে পূজা ম-বগুলোতে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হওয়ার আশংকা রয়েছে। শুধু তাই নয়, অনেক পরিবারের অনেক কর্তা ব্যক্তিরা নির্বচনী কাজে ব্যস্ত থাকায় পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা পূজার আনন্দ থেকে বঞ্চিত হবে।

তার বলেন, বির্নাচন কমিশনের হটকারী সিদ্ধান্ত নেওয়ার কারণে সরকারকে প্রশ্ন বিদ্ধ করার চক্রান্ত চলছে। রংপুর জেলা ও মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ সাংবাদিক সন্মেলনে অভিযোগ করেন, রংপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচ পেছানোর জন্য গত কয়েকদিন ধরে তারা বিভিন্ন জেলার বিভিন্ন এলাকায় মানববন্ধন, সভা সমাবেশ, বিক্ষোভসহ জেলা নির্বাচন কমিশন ও জেলা প্রশাসককে স্মারকলিপিসহ বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করে আসছে।

তাদের আন্দোলনের পরেও নির্বাচন কমিশন ও সরকারের পক্ষ থেকে কোন আশ্বাস না পাওয়ায় রংপুর জেলা ও মহানগরের ৯ ’শ ৬২ ম-বে দূর্গা পূজা বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, ধর্ম যার যার রাষ্ট্র সবার। এতে রাষ্ট্রের সকল ধর্ম ও বর্ণের মানুষের নৈতিক অধিকার আছে।

সংবাদ সন্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাংলদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ রংপুর জেলা শাখার উপদেষ্টা ভবতোষ সরকার বাচ্চু, ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অজয় প্রসাদ বাবন, সাধারণ সম্পাদক ধীমান ভট্টাচার্য, সদস্য দেবদাস ঘোষ, সুব্রত সরকার, প্রশান্ত কুমার রায়, বিভুতি কুমার রায় প্রমুখ।

(এম/এসপি/সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৯)

পাঠকের মতামত:

২০ অক্টোবর ২০১৯

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test