E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

পুলিশকে আসামী দেখিয়ে দেয়ার অপরাধে হত্যা মামলার বাদীকে কুপিয়ে জখম

২০১৯ ডিসেম্বর ১৪ ২২:১০:৫৫
পুলিশকে আসামী দেখিয়ে দেয়ার অপরাধে হত্যা মামলার বাদীকে কুপিয়ে জখম

সমরেন্দ্র বিশ্বশর্মা, কেন্দুয়া (নেত্রকোনা) ‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌‌: নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলায় হত্যা মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত এক আসামীকে পুলিশে দেখিয়ে দেয়ার অপরাধে মামলার বাদী তারা মিয়াকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করেছে আসামী পক্ষের লোকেরা। 

ঘটনাটি ঘটে শনিবার উপজেলার রোয়াইলবাড়ী আমতলা ইউনিয়নের গামরুলী আতকাপাড়া গ্রামে। তারা মিয়া ওই গ্রামের হাদিস মিয়ার ছেলে। কুপানোর ফলে তার ডান পায়ের গুড়ালির উপরের অংশ প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

আশংকাজনক অবস্থায় তারা মিয়াকে প্রথমে কেন্দুয়া উপজেলা হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

জমি সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে গত জৈষ্ঠ মাসে তারা মিয়ার বড় ভাই শাহজাহান মিয়া সংঘর্ষে আহত হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে মারা যান। এ ঘটনায় তারা মিয়া বাদী হয়ে একই গ্রামের প্রতিপক্ষের ১৮ জনের বিরুদ্ধে কেন্দুয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

গত বৃহস্পতিবার কেন্দুয়া থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত এক আসামীকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠায়। ওয়ারেন্টভুক্ত আসামীকে গ্রেফতার করতে তারা মিয়া দেখিয়ে দিয়ে পুলিশকে সহযোগিতা করেন। এতে আসামী পক্ষের বাচ্চু, শহিদ, শান্তু ও বাবুল মিয়া গংরা ক্ষিপ্ত হয়ে শনিবার মামলার বাদী তারা মিয়াকে পেয়ে কুপিয়ে জখম করে।

কেন্দুয়া উপজেলা হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. পিয়াস পাল জানান, ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তারা মিয়ার ডান পায়ের গুড়ালির উপরের অংশ প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। তাকে উন্নত চিকিৎসা দেয়ার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে।

কেন্দুয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান বলেন, বৃহস্পতিবার হত্যা মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত এক আসামীকে গ্রেফতার করে নেত্রকোনা আদালতে পাঠানো হয়েছে। এই ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে হত্যা মামলার বাদী তারা মিয়া কে কুপিয়ে জখম করেছে আসামী পক্ষের লোকজন।

তিনি বলেন, আসামী পক্ষের লোকেরা পালিয়ে যাওয়ায় তাদেরকে এখনও গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি।

(এসবি/এসপি/ডিসেম্বর ১৪, ২০১৯)

পাঠকের মতামত:

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test