E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

আড়িয়াল খাঁ নদের ৪০ মিটার বিলীন, হুমকির মুখে মাদারীপুর শহর

২০২০ আগস্ট ০৪ ২১:৪১:২৩
আড়িয়াল খাঁ নদের ৪০ মিটার বিলীন, হুমকির মুখে মাদারীপুর শহর

মাদারীপুর প্রতিনিধি : মাদারীপুরের আড়িয়াল খাঁ নদের লঞ্চঘাট এলাকার শহর রক্ষা বাঁধের প্রায় ৪০ মিটার অংশ ঈদের দিন শনিবার বিকেল ৪ টার দিকে নদীতে বিলীন হয়ে যায়। ফলে ভাঙনের হুমকির মুখে রয়েছে মাদারীপুর শহরের শত শত স্থাপনা। ভাঙন প্রতিরোধে পানি উন্নয়ন বোর্ডের পক্ষ থেকে ফেলা হচ্ছে বালুর বস্তা। 

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মাদারীপুরের আড়িয়াল খাঁ নদের শহর রক্ষা বাঁধের লঞ্চঘাট এলাকার ওয়াক ওয়ের ৪০ মিটার অংশ ঈদের দিন শনিবার বিকেল ৪ টার দিকে হঠাৎ করে নদীতে বিলীন হয়ে যায়। এর ফলে ভাঙনের ঝুঁকিতে হুমকির মুখে রয়েছে মাদারীপুর শহরের শত শত বসতবাড়ি। আতঙ্গে রয়েছে শহরবাসী। নদীর পাড়ের বহু মানুষ ঘর বাড়ি ছেড়ে মালামাল নিয়ে অন্যত্র চলে গেছে।

এছাড়াও লঞ্চঘাটের উত্তর পাশে সবুজ বাগ এলাকায় নদে নির্মিত গোসলের জন্য তৈরি করা পাকা ঘাটটিও ভাঙনের মুখে আছে। ফলে যে কোন মুহূর্তে নদে বিলীন হয়ে যেতে পারে শহর রক্ষা বাঁধ, ওয়াক ওয়ে এবং গোসলের পাকা ঘাটটি। এ অংশে ভাঙ্গলে মুহূর্তের মধ্যেই পানি প্রবেশ করবে পুরো মাদারীপুর শহরে।

ইতিমধ্যে ভাঙন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেছেন জেলা প্রশাসক ড. রহিমা খাতুন, পানি উন্নয়ন বোর্ডের অতিরিক্ত মহাপরিচালক হাবিবুর রহমান, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাড. ওবাইদুর রহমান খান, পৌরসভার মেয়র মো. খালিদ হোসেন ইয়াদসহ স্থানীয় জন প্রতিনিধিরা।

ভাঙ্গণ রোধে শনিবার বিকেল থেকে মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত প্রায় এক হাজার সাতশত বালু ভর্তি জিও ব্যাগ ফেলছে পানি উন্নয়ন বোর্ড। এদিকে শিগগিরই টেকসই বেরিবাঁধ নির্মাণ ও ডাম্বিং কার্যক্রম শুরু না হলে বড় ধরণের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে আশঙ্কা স্থানীয়দের। জেলা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী পার্থ প্রতীম সাহা সার্বক্ষণিক উপস্থিত থেকে তদারকি করছেন জিও ব্যগ ফালানোর কার্যক্রমের। ভাঙন কবলিত স্থানে জনগণের নিরাপত্তার জন্য মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

ভাঙনে ক্ষতিগ্রস্থ স্থানীয় শহিদুল ইসলাম বলেন, হঠাৎ করে নদের ভাঙনে শহর রক্ষা বাঁধ এবং ওয়াক ওয়ে ভেঙে গেছে। আমার বাড়ির কিছু অংশ নদীতে বিলীন হয়ে গেছে। আমরা খুব আতঙ্গের মধ্যে আছি। সরকারের পক্ষ থেকে যেন দ্রুত স্থায়ী বাধ নির্মাণ করা হয় সেই দাবি জানাই।

নাম না প্রকাশে এলাকাবাসী জানান, প্রভাবশালীরা অপরিকল্পিত ও অবৈধভাবে নদ থেকে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলণের জন্যই এই ভাঙ্গণের সৃষ্টি হয়েছে।

মাদারীপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী পার্থ প্রতীম সাহা বলেন, মাদারীপুর শহর রক্ষা বাঁধ এবং ওয়াক ওয়ের একাংশ নদে হঠাৎ করে ভেঙে গেছে। বালুর বস্তা ফেলে ভাঙন ঠেকানোর চেষ্টা চলছে। শনিবার বিকেল থেকে মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত এক হাজার সাতশত বালু ভর্তি জিও ব্যাগ ফেলা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ভাঙনের ঝুঁকি প্রতিরোধ করতে পেরেছি।

(এএস/এসপি/আগস্ট ০৪, ২০২০)

পাঠকের মতামত:

১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test