E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

চকলেটের লোভ দেখিয়ে শিশুকে ধর্ষণ

২০২০ অক্টোবর ২৪ ১০:২৩:২১
চকলেটের লোভ দেখিয়ে শিশুকে ধর্ষণ

নোয়াখালী প্রতিনিধি : নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার চরজব্বার ইউনিয়নে চকলেট ও বিস্কিটের লোভ দেখিয়ে এক শিশু ছাত্রীকে (৭) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত চরহাছান গ্রামের আব্দুল হক কাজী (৫৮) পলাতক রয়েছে। গুরুতর অবস্থায় শিশুটিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

শুক্রবার রাত পর্যন্ত অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা যায়নি। তবে তাকে গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

অভিযুক্ত আব্দুল হক কাজী চরহাছান গ্রামের দায়মুদ্দিন কাজীর ছেলে আব্দুল হক কাজী।

শিশুটির পরিবার ও অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, বুধবার দুপুরে শিশু শ্রেণির ওই ছাত্রী তাদের পাশের বাড়ির শিশুদের সাথে খেলাধুলা করছিল। এ সময় তার প্রতিবেশী আবদুল হক কাজী শিশুটিকে চকলেট ও বিস্কুট দেওয়ার কথা বলে তার বসতঘরে নিয়ে যায়। ঘরের দরজা বন্ধ করে শিশুটির মুখ চেপে ধরে ধর্ষণ করে আব্দুল হক। এসময় এ ঘটনা কাউকে বললে তাকে হত্যা করার হুমকি দেয়। রক্তাক্ত শিশুটি কাঁদতে কাঁদতে বাড়ি গিয়ে বিষয়টি তার মা’কে জানায়। পরে শিশুটির পরিবারের পক্ষ থেকে বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মীমাংসার আশ্বাস দেয়া হয়।

পরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শিশুটির বাবা চরজব্বার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তরিকুল ইসলাম মাস্টারের কাছে ঘটনা জানালে তিনি রাতেই চরজব্বার থানায় শিশুটি ও তার পরিবারকে পাঠিয়ে দেন। রাতেই মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে আব্দুল হক কাজীকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা করেন।

চরজব্বার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান তরিকুল ইসলাম জানান, তিনি বিষয়টি শুনে সাথে সাথে তাদের চরজব্বার থানায় পাঠিয়ে ওসিকে মামলা নেওয়ার অনুরোধ করেন।

চরজব্বার থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ইব্রাহীম খলিল বলেন, শিশুটিকে উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে ধর্ষক পলাতক রয়েছে। তবে তাকে দ্রুত গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চলছে।

(এস/এসপি/অক্টোবর ২৪, ২০২০)

পাঠকের মতামত:

০৪ ডিসেম্বর ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test