E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Technomedia Limited
Mobile Version

১ আগস্ট থেকে চলাচল করবে হলদিবাড়ি-চিলাহাটি পন্যবাহী ট্রেন

২০২১ জুলাই ৩০ ১১:৫৮:৩৭
১ আগস্ট থেকে চলাচল করবে হলদিবাড়ি-চিলাহাটি পন্যবাহী ট্রেন

নীলফামারী প্রতিনিধি : আগামী ১ আগস্ট থেকে খুলে দেয় হচ্ছে বাংলাদেশ-ভারত বাণিজ্যের রেলপথের আরেকটি নতুন দুয়ার। দীর্ঘ ৬৫ বছর পর ফের চালু হচ্ছে সম্ভাবনাময় চিলাহাটি-হলদিবাড়ি রেলপথে পণ্যবাহী ট্রেন। এ পথে পণ্যপরিবহনে ১৫০ কিলোমিটার পথ সাশ্রয় হবে।

বৃহস্পতিবার(২৯ জুলাই) ভারতীয় উত্তর-পূর্ব সীমান্ত রেলওয়ের দুটি ইঞ্জিন ভারতের নিউ জলপাইগুড়ি থেকে সকাল ১০টা ১০মিনিটে ছেড়ে হলদিবাড়ি সীমান্ত দিয়ে নীলফামারীর চিলাহাটি সীমান্ত জিরো পয়েন্টে পৌঁছায় ১১টা ৪৫ মিনিটে। সেখানে ভারতীয় সীমান্ত ইমিগ্রেশনে আনুষ্ঠানিকতা শেষে দুপুর ১২টা ৩৮মিনিটে বাংলাদেশের চিলাহাটি রেলস্টেশনে পরীক্ষামুলক যাত্রা সম্পন্ন করে। এ সময় ভারতীয় উত্তর-পূর্ব সীমান্ত রেলওয়ের দুটি ইঞ্জিনের সঙ্গে আসেন ট্রেন পরিচালক ও ইঞ্জিন চালক সহ গৌরব বুথা, লিটু রাজ, অর্কদাস, রাকেশ কুমার, মুকেশ কুমার সিং, অরিজিৎ রায়, এমপি. চৌধুরী, ডি.একান্দ চৌধুরী। তাদের ফুলের তোড়া দিয়ে বরণ করে নেন পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে ডিপুটি প্রজেক্ট ম্যানেজার প্রকৌশলী নাজমুল হক রকি, পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে উর্দ্ধতন উপ-সহকারী প্রকৌশলী সুলতান মৃধা, পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে সৈয়দপুর রেল অফিসের উর্ধ্বতন প্রকৌশলী ওয়ার্কস (আইডাব্লু) প্রকৌশলী শফিকুল ইসলাম, নীলফামারীর ডোমার থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান, চিলাহাটি রেলষ্টেশন মাষ্টার আশরাফুল ইসলাম প্রমুখ। পরে বাংলাদেশে ইমিগ্রেশন শেষে দুপুর ১টা ৫৮মিনিটে নিউ জলপাইগুড়ির উদ্দেশ্যে ইঞ্জিন দুইটি চিলাহাটি রেলওয়ে ষ্টেশন ছেড়ে যায়।

এসময় ভারতীয় রেলওয়ে প্রতিনিধি জেষ্ঠ্য গুডস গার্ড মুকেশ কুমার সিং জানান, আগামী পহেলা আগষ্ট থেকে এই পথে দুই পণ্যবাহী ট্রেন চালু হতে যাচ্ছে। শুরুতে পণ্যবাহী ট্রেনে ভারত থেকে পাথর ও গম আসবে। এমন কি এই পথে অক্সিজেনবাহী ট্রেনও চলাচল করতে পারে।

ভারতীয় প্রতিনিধিদের সুত্র মতে, ট্রেন চালুর আগে বিশেষ প্রশিণ দেওয়া হয় রেলের গার্ড ও চালকদের। নিয়ম অনুযায়ী ট্রেন পরিষেবা চালুর আগে নতুন রুটটির সঙ্গে পরিচিত হওয়ার জন্য গার্ড ও চালকরা এক বা দুটি ইঞ্জিন নিয়ে রুট পরিদর্শন করেন। রেলের পরিভাষায় যাকে লার্নিং রোড(এলআর) বলে। এদিন গার্ড ও লোকো পাইলটের দলে ছিলেন চারজন রেলের সিনিয়ার গুডস গার্ড, একজন লোকো পাইলট (প্যাসেঞ্জার), তিনজন লোকো পাইলট (গুডস) এবং চরজন অ্যাসিস্ট্যান্ট লোকো পাইলট। সীমান্তে উপস্থিত ছিলেন কাস্টমের সুপার ইনটেন্ডেন্ট রিমা মাংগার, বিএসএফের ১৮০ ব্যাটালিয়নের সেকেন্ড ইন কমান্ড প্রভাত, এনজেপির এরিয়া ম্যানেজার আসিফ আলিসহ আরও অনেকে। এদিন প্রশিণ সুষ্ঠুভাবে সমপন্ন হওয়ায় তারা খুশি।

উল্লেখ্য, এর আগে ২০২০ সালের ১৭ ডিসেম্বর বাংলাদেশে চিলাহাটি থেকে ভারতের হলদিবড়ি পর্যন্ত পন্যবাহী ট্রেন চলাচলের উদ্ধোধন করা হয়েছিল। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তা উদ্ধোধন করেছিলেন দুই দেশের প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নরেন্দ্র মোদী। এ ছাড়া চলতি বছরে বাংলাদেশের সুবর্ণজয়ন্তী এবং বাংলাদেশ-ভারত কূটনেতিক সম্পর্কের ৫০ বছর অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ঢাকায় এসেছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সে সময় ২৭ মার্চ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং নরেন্দ্র মোদি যৌথভাবে ঢাকা থেকে নিউ জলপাইগুড়ি পর্যন্ত আন্তঃদেশীয় যাত্রীবাহী মিতালী এক্সপ্রেস ট্রেনের উদ্বোধন করেন।

(এমআইএস/এএস/জুলাই ৩০, ২০২১)

পাঠকের মতামত:

২৮ অক্টোবর ২০২১

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test