E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Technomedia Limited
Mobile Version

টাঙ্গাইলে স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার দায়ে স্বামীর যাবজ্জীবন

২০২২ জুলাই ০৫ ১৮:৩৬:০২
টাঙ্গাইলে স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার দায়ে স্বামীর যাবজ্জীবন

মোঃ সিরাজ আল মাসুদ, টাঙ্গাইল : টাঙ্গাইলে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার দায়ে স্বামী মো. সুজন মিয়াকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক খালেদা ইয়াসমিন।

মঙ্গলবার (৫ জুলাই) দুপুরে আসামির উপস্থিতিতে বিচারক ওই রায় ঘোষণা করেন। দণ্ডিত মো. সুজন মিয়া (৩৫) টাঙ্গাইল শহরের আদি টাঙ্গাইল এলাকার মৃত আব্দুস সালামের ছেলে। টাঙ্গাইল নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের এপিপি মোহাম্মদ আব্দুল কুদ্দুস বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, প্রায় ১৪ বছর আগে মো. সুজন মিয়ার সাথে আদি টাঙ্গাইল দাসপাড়ার(মাঝিপাড়া) শিউলী আক্তার (২৭)এর বিয়ে হয়। বিয়ের পর দেড় লাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে তার স্বামী বিভিন্ন সময় শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করতেন।

২০১৪ সালের ১৭ জুন সকালে তার স্বামী মো. সুজন মিয়া ঘরের দরজা বন্ধ করে যৌতুকের টাকার জন্য শিউলী আক্তারকে মারপিট করে। পরে পরিকল্পিতভাবে সেভেনআপের বোতল ভর্তি কেরোসিন তেল ঢেলে তার স্ত্রী শিউলী আক্তারের শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয়।

এ সময় তার ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে এসে শিউলী আক্তারকে উদ্ধার করে প্রথমে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

ঘটনার পরের দিন চিকিৎসাধীন অবস্থায় শিউলী আক্তারের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় তার ভাই মো. শিবলু মিয়া বাদী হয়ে ২০১৪ সালের ১৮ জুন টাঙ্গাইল সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

(এসএম/এসপি/জুলাই ০৫, ২০২২)

পাঠকের মতামত:

১৯ আগস্ট ২০২২

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test