E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Technomedia Limited
Mobile Version

আমদানিকারকের মামলায় মোংলা বন্দরে আটকা পড়েছে ২ বিদেশি জাহাজ

২০২৩ ফেব্রুয়ারি ০৮ ১৯:৫৭:০২
আমদানিকারকের মামলায় মোংলা বন্দরে আটকা পড়েছে ২ বিদেশি জাহাজ

সরদার শুকুর আহমেদ, বাগেরহাট : আমদানিকারকের দায়ের করা মামলার কারণে মোংলা বন্দরে আটকে আছে কয়লা নিয়ে আসা পানামার পতাকাবাহী দুটি জাহাজ। জাহাজ দুটিতে ৫০ হাজার মেট্রিক টনের বেশি কয়লা আমদানি করা হয়েছিল। এরমধ্যে গত ৭ জানুয়ারি বন্দরের হারবাড়িয়া-১২ নম্বরে নোঙর করা ‘এমভি সানবাল্ক’ জাহাজে আসা ২৭ হাজার ২৪৩ মেট্রিক টন কয়লা পুরোপুরি খালাস করা হয়েছে। অন্য জাহাজ ‘এমভি ইউনিভার্সি প্রোসটার্টি’তে গত ২৫ জানুয়ারি ২৪ হাজার মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে বন্দরের পশুর চ্যানেলের সুন্দরী কোঠায় নোঙর করলেও পন্য খালাস হয়নি। কয়লা আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান জয়েন্ট ট্রেডিং করপোরেশন এবং তাহমিদ ট্রেডার্স ক্ষতিপূরণ মামলা করায় জাহাজ দুটি এখন মোংলা বন্দর ত্যাগ করতে পারছে না। মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষ এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

বিদেশি জাহাজ দুটির স্থানীয় শিপিং এজেন্ট মেসার্স কসমস শিপিং এজেন্টের ব্যবস্থাপক সিরাজুল ইসলাম জানান, গত ৪ ডিসেম্বর ইন্দোনেশিয়ার একটি বন্দর থেকে এই কয়লা বোঝাই করতে জাহাজ দুটি সেখানে যায়। কিন্তু এর মধ্যে জাহাজ মালিক ও জাহাজ ভাড়া করা কোম্পানির (চার্টারার) মধ্যে বিরোধ দেখা দেয়ার কারণে নির্ধারিত সময়ের প্রায় দেড় মাস পরে কয়লা বোঝাই করে মোংলা বন্দরে আসে জাহাজ দুটি। এতে কয়লা আমদানিকারকরা ক্ষতির মুখে পড়েন।

কয়লা আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান জয়েন্ট ট্রেডিং করপোরেশনের মালিক আনিসুর রহমান জানান, জাহাজ মালিক এবং জাহাজ ভাড়া করা কোম্পানির দ্বন্দ্বের কারণে জয়েন্ট ট্রেডিং করপোরেশনের আমদানি করা কয়লা নির্ধারিত সময়ে মোংলা বন্দরে পৌঁছাতে বিলম্ব হয়। এতে কয়লার গুণগত মান নষ্ট ও বাজার মূল্য হ্রাস পাওয়ায় তার প্রতিষ্ঠান আর্থিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। এজন্য উচ্চ আদালতে ক্ষতিপূরণ কমালা করা হয়েছে। উচ্চ আদালদের নির্দেশে এমভি সানবাল্ক জাহাজ মোংলা বন্দর ত্যাগ করতে পারছেনা। এদিকে তাহমিদ ট্রেডার্সের মোংলার কয়লা খালাসকারী প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধি ইকবাল হোসেন জানান, একই ধরনের ক্ষতির সম্মুখীন হওয়ায় তাদের আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানও মামলা করেছে। একারনে এমভি ইউনিভার্সি প্রোসটার্টি জাহাজে কয়লা খালাস বন্ধ রয়েছে।

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাস্টার ক্যাপ্টেন শাহীন মজিদ জানান, কয়লা নিয়ে আসা বিদেশি জাহাজ দুটি যাতে মোংলা বন্দর ত্যাগ করতে না পারে সেজন্য গত ৬ ফেব্রুয়ারি আদালতের নির্দেশনা এসছে। নির্দেশনায় নো অবজেকশন সার্টিফিকেটের (এনওসি) কথা উল্লেখ থাকায় আদালতের আদেশ পালন করতে হচ্ছে মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষকে। এ কারণে বন্দরে অবস্থানরত কয়লা নিয়ে আসা বিদেশি জাহাজ দুটি বন্দর ত্যাগ করতে পারছে না বলেও জানান বন্দরের এই কর্মকর্তা।

(এসএসএ/এএস/ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০২৩)

পাঠকের মতামত:

২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test