Pasteurized and Homogenized Full Cream Liquid Milk
E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

 

চাটমোহরে ছাত্রী পেটানো শিক্ষককে শাস্তিকমূলক বদলি

২০১৬ ফেব্রুয়ারি ০৯ ২০:২৬:০০
চাটমোহরে ছাত্রী পেটানো শিক্ষককে শাস্তিকমূলক বদলি

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি : স্কুলড্রেস পরে ক্লাসে না আসায় শিক্ষকের বেত্রাঘাতে আহত স্কুলছাত্রী হাসপাতালে ভর্তির ঘটনায় তদন্ত শেষে মঙ্গলবার অভিযুক্ত শিক্ষককে শাস্তিমূলক বদলি করা হয়েছে। একই সঙ্গে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্যে তদন্ত কমিটি সুপারিশ করেছে।

জানা যায়, পাবনার চাটমোহর উপজেলার বিলচলন ইউনিয়নের রামনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শাহীনুর ইসলাম শাহীন গত শনিবার স্কুলড্রেস পরে ক্লাসে না আসায় পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী রজনী খাতুনকে উপর্যুপরি বেত্রাঘাত করে। গুরুতর আহত হয় একই উপজেলার দোলং গ্রামের সুরুজ আলীর মেয়ে ওই স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী রজনী খাতুন। ওইদিনই ছাত্রীর স্বজনরা চাটমোহর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

এ ঘটনার বিচার দাবি করে রবিবার রজনী খাতুনের পিতা সুরুজ আলী উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। তদন্ত কমিটির সদস্য ফারহানা খান বলেন, ‘স্কুল পরিদর্শন করে অভিযোগের সত্যতা মিলেছে। চাটমোহর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শিক্ষার্থী রজনীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছি। তার পায়ে বেত্রাঘাত করা হয়েছে। সরকারিভাবে সিদ্ধান্ত রয়েছে, কোনো শিক্ষার্থীকে প্রহার করা যাবে না। সে লক্ষ্যেই অভিযোগের সত্যতার প্রেক্ষিতে অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করা হয়েছে।’

উপজেলা সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বিপ্লব দেবনাথ বলেন, ‘বেত্রাঘাতের শিকার রজনী খাতুনের পরিবারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে সোমবার দুই সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। ওই তদন্ত কমিটির সদস্য উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা ফারহানা খান ও শাহীনুর আলম সোমবার বিকেলে রামনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন করে অভিযোগে সত্যতা পেয়েছে। ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সহকারী শিক্ষক শাহীনুর ইসলাম শাহীনকে শাস্তিমূলক একই উপজেলার চরণবীন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বদলি করা হয়। তদন্ত প্রতিবেদনে অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্যেও সুপারিশ করা হয়েছে।’

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. সবিজুর রহমান বলেন, ‘বেত্রাঘাতে অসুস্থ শিক্ষার্থী রজনী খাতুন স্বাভাবিক পর্যায়ে চলে আসায় মঙ্গলবার সকালে তাকে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে।’ বর্তমানে সে সুস্থ বলেও তিনি জানান। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জেসমিন রহমান ও পরিচালনা কমিটির সভাপতি মো. কামরুজ্জামান বলেন, আমরা শিক্ষার্থীকে দেখতে হাসপাতালে গিয়েছিলাম। তেমন কোন আঘাতের চিহ্ন দেখতে পাইনি। কিছু বুঝে ওঠার আগেই শিক্ষককে বদলি করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত শনিবার চাটমোহর উপজেলার বামনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্কুল ড্রেস পরে না আসায় শিক্ষক শাহীনুর ইসলাম শাহীন এর উপর্যুপরি বেতের আঘাতে গুরুতর আহত হয় পঞ্চম শ্রেণীর শিক্ষার্থী রজনী খাতুন (১২)। বেতের আঘাত ও আতংকে গুরুতর আহত হওয়ায় রজনীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসা শেষে মঙ্গলবার সকালে বাড়ি ফিরেছে।

(এসএইচএম/পি/ফেব্রুয়ারি ০৯, ২০১৬)

পাঠকের মতামত:

২৬ আগস্ট ২০১৯

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test