E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

কাঁচা মরিচ ১৪০ টাকা, সবজিতে স্বস্তি

২০১৮ জুলাই ২৭ ১৪:৩৯:১০
কাঁচা মরিচ ১৪০ টাকা, সবজিতে স্বস্তি

স্টাফ রিপোর্টার : চলতি মাসের (জুলাই) শুরুতে হঠাৎ দাম বেড়ে যাওয়া কাঁচা মরিচের দাম এখনও চড়া। রাজধানীর বাজারভেদে কাঁচা মরিচ বিক্রি হচ্ছে ১২০-১৪০ টাকায় কেজিতে। তবে বেশিরভাগ সবজিই ৩০ টাকা মধ্যে পাওয়া যাচ্ছে।

শুক্রবার (২৭ জুলাই) রাজধানীর কারওয়ান বাজার, রামপুরা, মালিবাগ হাজীপাড়া, খিলগাঁও, সেগুনবাগিচা এবং শান্তিনগরের বিভিন্ন বাজার ঘুরে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

ব্যবসায়ীরা জানান, তিন সপ্তাহের বেশি সময় ধরে চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে কাঁচা মরিচ। গত কয়েকদিন ধরে যে হারে বৃষ্টি হচ্ছে তাতে মরিচের দাম কমার সম্ভাবনা নেই। বরং সামনে দাম আরও বাড়তে পারে। একই সঙ্গে বাড়তে পারে অন্যান্য সবজির দামও।

শুক্রবার বাজার ঘুরে দেখা গেছে, এলাকা ও মানভেদে কাঁচা মরিচ বিক্রি হয়েছে ১২০-১৪০ টাকা কেজি। কারওয়ান বাজারে ১০০-১২০ টাকা, রামপুরায় ১৪০-১৬০ টাকা, সেগুনবাগিচায় ১৩০-১৪০ টাকা এবং যাত্রাবাড়ীর ব্যবসায়ীরা ১১০-১২০ টাকা কেজিতে কাঁচা মরিচ বিক্রি করছেন। আগের সপ্তাহেও ব্যবসায়ীরা একই দামেই বিক্রি করেছেন বলে জানান তারা।

কাঁচা মরিচের চড়া দামের বিষয়ে কারওয়ান বাজারের ব্যবসায়ী মো. ইলিয়াস বলেন, বাজারে এখন কাঁচা মরিচের সরবরাহ তুলনামূলক কম। যে হারে বৃষ্টি হচ্ছে তাতে মরিচের সরবরাহ আরও কমে যেতে পারে। কারণ, বৃষ্টির পানিতে খেতে কাঁচা মরিচ নষ্ট হয়ে যায়।

যাত্রাবাড়ীর ব্যবসায়ী খায়রুল মিয়া বলেন, কাঁচা মরিচের দাম সহসা কমার সম্ভাবনা নেই। গত কয়েক দিনের বৃষ্টিতে অনেক চাষীর খেতে মরিচ নষ্ট হয়ে গেছে। তাই সামনে দাম তো কমবেই না বরং আরও বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

এছাড়া বাজারে পটল, ঝিঙা, ধুনদল, চিচিংগা, বেগুন, কাকরল, ঢেঁড়স, মিষ্টি কুমড়া, পেপে, করলাসহ প্রায় সব সবজিই ভরপুর। এসব সবজি ৩০ টাকা কেজির মধ্যে বিক্রি হচ্ছে। তবে বাজার ভেদে সবজির দামের পার্থক্য রয়েছে। কারওয়ান বাজার, মালিবাগ, হাজিপাড়া, যাত্রাবাড়ীর বেশিরভাগ বাজারে চিচিংগা, পটল, ঝিঙা, ধুনদল, কাকরল, করলা, পেপে বক্রি হচ্ছে ২৫-৩০ টাকা কেজি। তবে সেগুনবাগিচা বাজরে এসব সবজি ৪০ টাকা বা তারও বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে।

সবজির মধ্যে বাজারে এখন সব থেকে বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে পাকা টমেটো এবং বরবটি। পাকা টমেটো বিক্রি হচ্ছে ১০০-১২০ টাকা কেজি দরে। গত সপ্তাহে টমেটোর দাম ছিল ৭০-৮০ টাকা কেজি। সে হিসাবে বাজারে পাকা টমেটোর দাম কিছুটা বেড়েছে।

যাত্রাবাড়ীর ব্যবসায়ী মো. মিজানুর রহমান বলেন, বাজারে এখন সব সবজির সরবরাহ ভরপুর। যে কারণে দাম কিছুটা কম। তবে সামনে সবজির দাম বাড়তে পারে। কারণ, বৃষ্টি হলে খেতে সবজি নষ্ট হয়ে যায়। গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে ইতোমধ্যে অনেক সবজি খেতে নষ্ট হয়েছে।

কারওয়ান বাজারের ব্যবসায়ী মো. জয়নুল বলেন, অনেক দিন ধরেই বাজারে বেশিরভাগ সবজি ৩০-৪০ টাকার মধ্যে পাওয়া যাচ্ছে। তবে এক-দুই সপ্তাহের মধ্যে সবজির দাম বেড়ে যেতে পারে। বৃষ্টিতে সবজি নষ্ট হয়ে যেতে পারে -এমন আশঙ্কায় অনেক চাষী খেতের ফলস তুলে ফেলছেন। ফলে সামনে বাজারে সবজির সরবরাহ কমে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

(ওএস/এসপি/জুলাই ২৭, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test