E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

মানিলন্ডারিং : ড. মোশাররফের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ ৯ সেপ্টেম্বর

২০১৮ সেপ্টেম্বর ০৪ ১৩:১০:৫৪
মানিলন্ডারিং : ড. মোশাররফের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ ৯ সেপ্টেম্বর

স্টাফ রিপোর্টার : দুদকের দায়ের করা মানিলন্ডারিং মামলায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের বিরুদ্ধে তদন্তকারী কর্মকর্তা দুদক পরিচালক মো. নাসিম আনোয়ারের সাক্ষী হিসেবে জবানবন্দি গ্রহণ করা হয়েছে। মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে জেরার কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

সোমবার দুদকের কর্মকর্তাকে জেরা করেন আসামিপক্ষের আইনজীবী মো. বোরহান উদ্দিন। জেরা শেষ না হওয়ায় মামলার কার্যক্রম আগামী ৯ সেপ্টেম্বর পরবর্তী দিন ঠিক করেন।

সোমবার ঢাকার এক নম্বর বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মো. আতাউর রহমানের আদালত এই আদেশ দেন।

জেরা করার সময় আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম, দুদকের আইনজীবী খুরশিদ আলম খান ও মীর আহমেদ আলী সালাম উপস্থিত ছিলেন।

এ মামলায় ২০১৫ সালের ২৮ অক্টোবর খন্দকার মোশাররফ হোসেনের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেন আদালত। এর আগে ওই বছর ১২ মার্চ খন্দকার মোশাররফকে তার গুলশানের বাসা থেকে আটক করা হয়। পরদিন মামলাটিতে তার তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছিলেন সিএমএম আদালত।

যুক্তরাজ্যে ৯ কোটি ৫৩ লাখ ৯৫ হাজার ৩৮১ টাকা পাচারের অভিযোগে ২০১৫ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি রাজধানীর রমনা মডেল থানায় দুদকের পরিচালক নাসিম আনোয়ার এই মামলা দায়ের করেন।

মামলার এজাহারে বলা হয়, খন্দকার মোশাররফ ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত দুর্নীতি ও মানিলন্ডারিংয়ের মাধ্যমে যুক্তরাজ্যের ব্যাংকে তার নিজের ও স্ত্রী বিলকিস আক্তারের যৌথ নামে আট লাখ চার হাজার ১৪২ ব্রিটিশ পাউন্ড পাচার করেন, যা বাংলাদেশি টাকায় ৯ কোটি ৫৩ লাখ ৯৫ হাজার ৩৮১ টাকার সমপরিমাণ।

এজাহারে আরও বলা হয়, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বিগত চারদলীয় জোট সরকারের আমলে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী থাকা অবস্থায় ক্ষমতার অপব্যবহার করে প্রচুর অর্থ-সম্পত্তির মালিক হয়েছেন।

(ওএস/এসপি/সেপ্টেম্বর ০৪, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

১৪ নভেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test