E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

সাবেক স্বামীর মামলায় মিলাকে আদালতে হাজিরের নির্দেশ

২০২০ ফেব্রুয়ারি ২৬ ১৫:৪৫:২০
সাবেক স্বামীর মামলায় মিলাকে আদালতে হাজিরের নির্দেশ

স্টাফ রিপোর্টার : ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় সংগীতশিল্পী তাশবিহা বিনতে শহীদ মিলাকে আদালতে হাজির হওয়ার জন্য সমন জারি করা হয়েছে।

বুধবার বাংলাদেশে সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ আসসামছ জগলুল হোসেন পুলিশের দেয়া প্রতিবেদন আমলে নিয়ে তাকে আদালতে হাজির হওয়ার জন্য সমন জারি করেন। আগামী ৫ এপ্রিল এ বিষয়ে শুনানির জন্য দিন ধার্য রয়েছে।

ট্রাইব্যুনালের পেশকার শামীম আল মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ২৫ ফেব্রুয়ারি কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইমের উপ-পরিদর্শক মহিদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় মিলার বিরুদ্ধে প্রতিবেদর দাখিল করেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়, মিথ্যা ও অপমান অপদস্থ করার অভিপ্রায় মানহানিকর তথ্য প্রচার করার অভিযোগে মিলার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ২০১৮ এর ২৫ (২)/২৯(১) অপরাধ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে।

২০১৯ সালের ২১ এপ্রিল বাংলাদেশ সাইবার ট্রাইব্যুলে মিলার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেন তার সাবেক স্বামী এস এম পারভেজ সানজারী। আদালত বাদির জবানবন্দি গ্রহণ করে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।

মামলার অভিযোগ সানজারি বলেন, মিলা ২০১৯ সালের ১৬ এপ্রিল দুপুর ১টা ৫ মিনিটে তার ফেসবুক পেজ ও দুপুর ১টা ১০ মিনিটে তার নিজের ফেসবুক আইডিতে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। সেখানে আমাকে, আমার পরিবার ও সহকর্মীদের নোংরা ভাষায় গালি দেয়া হয়েছে।

স্ট্যাটাসে ‘জীবিত নুসরাত’ শিরোনাম ছিল। মিলা পরবর্তী সময়ে (১৬ এপ্রিল) সেটি সংশোধন করেন। ফেসবুক পেজের এডিট হিস্টোরিতে এখনও তার পূর্বের স্ট্যাটাসটি রয়েছে। সেখানে আদালতের পাবলিক প্রসিকিউশন, ইউএস বাংলার দুই কর্মকর্তাকেও গালমন্দ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের ১২ মে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় মিলা ও পারভেজের। ওই বছরেরই ৬ অক্টোবর দিবাগত রাত ৩টায় ফেসবুকে মিলা জানান পারভেজ সানজারির সঙ্গে তার বিচ্ছেদ হয়েছে।

(ওএস/এসপি/ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২০)

পাঠকের মতামত:

১০ এপ্রিল ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test