Pasteurized and Homogenized Full Cream Liquid Milk
E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

শিরোনাম:

ত্বকে বয়সের ছাপ কমাবে তুলসী পাতা

২০১৯ জুলাই ০৬ ১৭:৩১:১৩
ত্বকে বয়সের ছাপ কমাবে তুলসী পাতা

লাইফস্টাইল ডেস্ক : তুলসী পাতার রয়েছে নানাবিধ ঔষধি গুণ। বিশেষ করে ঠাণ্ডা জ্বরে তুলসী পাতা খুবই উপকারি। তবে রূপচর্চায়ও তুলসী পাতার জুড়ি নেই। তুলসী পাতা ব্যবহারের ফলে আপনার ত্বকে জ্যোতি ছাড়াবে। ত্বকে বয়সের ছাপ কমাবে তুলসী পাতা।

আসুন জেনে নেই রূপচর্চায় তুলসী পাতার ব্যবহার।

টোনার

তুলসী পাতা ভালো করে পানিতে ফুটিয়ে ঠাণ্ডা করে টোনার হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন।

ব্রণ

যাদের খুব বেশি ব্রণ হয়, ফুটন্ত পানিতে প্রতিদিন ৪-৫টি তুলসী পাতা ফেলে সেই ভাপটা মুখে নিন ১০ মিনিট। এরপর ঠাণ্ডা পানিতে মুখ ধুয়ে নিন। ব্রণ কমবে।

প্যাক

তুলসী পাতা, নিমপাতা, মুলতানি মাটি, চন্দন, লবঙ্গ ও সামান্য কর্পূর মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে সেটি মুখে ২০-২৫ মিনিট রাখার পর ধুয়ে ফেলুন।

স্বাভাবিক ত্বক

কাঁচা হলুদের পেস্ট, তুলসী পাতার রস ও বেসন মিলিয়ে মিশ্রণটি ১৫ মিনিট রেখে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

তৈলাক্ত ত্বক

তুলসী পাতার রস এবং ঝিঙের রস একসঙ্গে মিশিয়ে মুখে লাগান। শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা পানির ঝাপটা দিয়ে মুখটা ধুয়ে ফেলুন। তেলভাব কমবে এবং ত্বক ঝকঝকে হয়ে উঠবে।

মিশ্র ত্বক

এক চা চামচ কাঁচা হলুদ, দুই চা চামচ তুলসী পাতা, দুই চামচ পুদিনা পাতা একসঙ্গে পেস্ট করে এক চা চামচ জবের গুঁড়া মিশিয়ে মিশ্রণটি ১৫ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। এরপর পানিতে ধুয়ে ফেলুন।

ত্বকের দাগ দূর করতে

তুলসী পাতা ও বেসন একসঙ্গে পেস্ট করে ফেসপ্যাক বানিয়ে মুখে লাগান। মুখের কালো দাগ দূর হবে অথবা তুলসী পাতা মিহি করে গুঁড়া পাউডারের মতো ব্যবহার করতে পারেন।

হাত ও পায়ের কালো দাগ দূর করতে

তুলসী পাতার রস, দুধ, ময়দা, কাঁচা হলুদবাটা ও জাফরান মিশিয়ে মিশ্রণটি হাত ও পায়ে লাগিয়ে নিন। শুকিয়ে গেলে হালকাভাবে সার্কুলার মুভমেন্টে ঘষে ধুয়ে ফেলুন। দাগ কমে যাবে।

বলি রেখা দূর করতে

বয়স বাড়লে অনেক সময় চামড়া কুঁচকে যায়। এই সময় তুলসী পাতার রস-ডাবের পানি সমপরিমাণে মিশিয়ে মুখে ও গায়ে নিয়মিত লাগান, চামড়া টানটান থাকবে।

ত্বকের রুক্ষতা দূর করতে

ত্বককে সুরক্ষিত রাখতে তিলের তেলে তুলসী পাতা ভালো করে ফোটান, যতক্ষণ না তেলটা কালো হয়ে যাচ্ছে। ঠাণ্ডা হলে বোতলে ভরে রেখে দিন। শীতকালে ব্যবহার করুন।

টিপস

১. তুলসী পাতা পানিতে ফুটিয়ে সেই পানি পান করুন। জ্বর ও ঠাণ্ডায় প্রতিরোধক হিসেবে কাজ করে।

২. তুলসী পাতা বেটে তার সঙ্গে মধু ও আদা মিশিয়ে খান। জমে থাকা সর্দি থেকে মুক্তি পাবেন।

৩. তুলসী পাতা ও চন্দনের সঙ্গে বেটে কপালে লাগিয়ে দেখুন, মাথাব্যথা চলে যাবে।

৪. তুলসী পাতা বমিভাব কমাতে যথেষ্ট কার্যকর।

৫. তুলসীর মধ্যে আছে ময়েশ্চারাইজার। এর গুণে আপনার ত্বক থাকবে উজ্জ্বল।

(ওএস/এসপি/জুলাই ০৬, ২০১৯)

পাঠকের মতামত:

১৬ জুলাই ২০১৯

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test