E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

মুখে দুর্গন্ধ হওয়ার ১০ কারণ

২০১৮ জুন ১৫ ০০:২৯:২১
মুখে দুর্গন্ধ হওয়ার ১০ কারণ

স্বাস্থ্য ডেস্ক :  দামি জামা, ব্রান্ডের পারফিউম। কোথাও কোনো কমতি নেই। কিন্তু মুখ খুললেই সমস্যা। আপাতদৃষ্টিতে শরীর একেবারে সুস্থ থাকলেও মুখের দুর্গন্ধই যে কোনো জায়গায় নেগেটিভ ইম্প্রেশন তৈরি করে। সেক্ষেত্রে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের টুথপেস্ট দিয়ে দিনে একাধিকবার দাঁত ব্রাশ করেও মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে পারছেন না? সাবধান! আপনার মুখের দুর্গন্ধের পেছনে রয়েছে বিপদজনক সব রোগ। মাড়ির রোগ, ক্যানসার, অ্যালার্জ, ডায়াবেটিস, লিভারের রোগ, কিডনি ফেলিওর, ক্যানডিডা আলবিকানস, ক্রনিক অম্বল, পাইলেরিয়া, জগরেনস সিনড্রোম রোগের সাইড এফেক্টে মুখে দুর্গন্ধ হয়।

১) মুখের দুর্গন্ধ অ্যামোনিয়া ধরনের হলে বুঝতে হবে টাইপ ১ ডায়াবেটিসের সমস্যা রয়েছে। কারণ, দেহে ইনসুলিনের অভাব।

২) যদি নিঃশ্বাসে দিনের প্রত্যেক সময়ে সকালে ঘুম থেকে ওঠার পর যেমন গন্ধ থাকে, তেমন গন্ধ পাওয়া যায়, তাহলে বুঝতে হবে মুখের ভেতর স্যালিভা শুকিয়ে গিয়ে ব্যাকটেরিয়া উৎপন্ন হচ্ছে।

৩) সাইনাসের সমস্যা থাকলে নাকে ও গলায় মিউকাস জমে থাকে। তা থেকে দুর্গন্ধ তৈরি হয়। অ্যালার্জির কারণেও মুখে দুর্গন্ধ তৈরি হয়।

৪) নিঃশ্বাসে যদি টক টক গন্ধ পাওয়া যায়, তাহলে বুঝতে হবে খাবারে প্রোটিনের মাত্রা অতিরিক্ত বেশি হয়েছে। কারণ, কিটোনের ভাঙন।

৫) যদি নিঃশ্বাসে আঁশটে গন্ধ হয়, তাহলে বুঝতে হবে কিডনির সমস্যা রয়েছে। কিডনি ঠিকভাবে কাজ না করলে নাইট্রোজেন তৈরি হয়, যা দুর্গন্ধের জন্য দায়ী।

৬) নিঃশ্বাসে পচে যাওয়া মাংসের দুর্গন্ধ পেলে বুঝতে হবে, টনসিলের সমস্যা রয়েছে। টনসিলের কারণে সালফার উত্পন্নকারী ব্যাকটেরিয়া জন্ম নেয়। যে কারণে দুর্গন্ধ তৈরি হয়।

৭) লিভারের সমস্যাতেও মুখে দুর্গন্ধ তৈরি হয়। নিয়মিত দাঁত মেজেও এই দুর্গন্ধ যায় না।

৮) ক্যানডিডা আলবিকানসের কারণেও মুখে দুর্গন্ধ তৈরি হয়। জিভে যারা কোনো অলঙ্কার পরেন, তাদের এই সমস্যা বেশি হয়।

৯) ক্রনিক অম্বলের কারণে মুখে দুর্গন্ধ তৈরি করে। আলসার এবং গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা থাকলে অনেক সময় পাইলেরিয়ার সংক্রমণ হয়। তা থেকে মুখে দুর্গন্ধ।

১০) রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম থাকলে অনেক সময়ই মুখ শুকিয়ে যায়। এই ধরনের মেডিক্যাল সমস্যার অন্যতম হল জগরেনস সিনড্রোম।

বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মতে, দুর্গন্ধ মুক্ত থাকতে মৌসুমি তাজা ফল ও সবজি চিবিয়ে খেতে হবে। ক্যাফেইন প্রয়োজন হলে কফির বদলে চা খাওয়ার পরামর্শ। চিনিহীন চুইং গাম চেবানো যেতে পারে। দই যেমন হজমে সাহায্য করে, ঠিক তেমনই মুখের দুর্গন্ধ দূর করতেও সক্ষম। ভিটামিন সি-র পর্যাপ্ত জোগান প্রয়োজন। তাই বিভিন্ন ধরনের লেবু খাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকগণ। জর্দা দেওয়া পান খাওয়া বা সিগারেটের অভ্যাসও ছাড়তে হবে।

(ওএস/এসপি/জুন ১৫, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test