E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

বেরোবিতে ভুয়া নিয়োগপত্রে চাকরি দেয়ার অভিযোগ, গ্রেফতার ৩

২০২০ জুন ২৫ ২২:৪২:৪৫
বেরোবিতে ভুয়া নিয়োগপত্রে চাকরি দেয়ার অভিযোগ, গ্রেফতার ৩

স্টাফ রিপোর্টার, রংপুর : রংপুরের বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে আউট সোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল নিয়োগের ভুয়া নিয়োগপত্র বানিয়ে মালি ক্লিনার পদে চাকরি দেয়ার অভিযোগে প্রতারক চক্রের তিন সদস্যকে আটক করেছে রংপুরের র‌্যাব-১৩ এর সদস্যরা। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতরা হলো, জেলার মিঠাপুকুর উপজেলার খরমোদের পাড়া এলাকার মো: ওসমান গণি, দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুর উপজেলার বটগাছ গ্রামের রিজভী আলম ও একই জেলার ফুলবাড়ি উপজেলার গণিপাড়া গ্রামের জাহিদুল ইসলাম।

এ ছাড়াও র‌্যাবের অপর একটি দল বুধবার রাতে গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ি উপজেলা থেকে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন ‘আল্লার দল’ এর তিন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃতরা হলো, পলাশবাড়ি থানার মহদীপুর ইউনিয়নের বিশ্রামগাছী পশ্চিমপাড়া গ্রামের মোঃ আল আমিন (৩৫), একই এলাকার মোঃ গোলাপ মন্ডল (৩৯) ও সাদুল্লাপুর থানার ধারাই গ্রামের মোঃ টিপু সুলতান। এ সময় তাদের কাছ থেকে বিপুল সংখ্যক উগ্রবাদী বই, লিফলেট, মোবাইল ফোন এবং সীমকার্ড উদ্ধার করে র‌্যাব।

প্রথম ঘটনায় র‌্যাব সূত্র জানায়, গত ৮ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ আউট সোর্সিং পদ্ধতিতে মালি ও ক্লিনার সরবরাহের লক্ষ্যে পত্রিকায় একটি দরপত্র আহবান করে। পরবর্তীতে ২৩ মার্চ করোনাজনিত উদ্ভূত পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে তা স্থগিত করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এবং বিষয়টি জাতীয় পত্রিকা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েব সাইটের মাধ্যমে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে প্রচার করে। কিন্তু তা সত্বেও নাছের ইন্টারন্যাশনাল নামের একটি প্রতিষ্ঠান নিজেদেরকে আউট সোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল সরবরাহের কার্যাদেশ প্রাপ্ত প্রতিষ্ঠান দাবি করে বিভিন্নজনকে চাকরির ভুয়া নিয়োগপত্র দেয়ার নামে অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে বলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের দৃষ্টিগোচর হয়।

পরে তারা ১৩ মে সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের সংশ্লিষ্ট সকলকে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য আহবান জানান এবং গত ১৪ মে চক্রটিকে শনাক্ত করার বিষয়ে স্থানীয় তাজহাট থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এরই সূত্র ধরে র‌্যাবের একটি দল বৃহস্পতিবার ওই চক্রের এই তিন সদস্যকে আটক করে। র‌্যাব জানায়, আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ চলছে এবং এর মুল হোতাদেরও খুঁজে বের করার চেষ্টা চালাচ্ছে তারা। অপর জঙ্গী গ্রেফতারের ঘটনায় র‌্যাব আরও জানায়, গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ থানায় একাধিক মামলা রয়েছে।

গ্রেফতারকৃতদের দেয়া মতে র‌্যাব জানায়, প্রথম আসামী স্বল্প শিক্ষিত হলেও ২ নম্বর আসামী এইচএসসি এবং ৩নম্বর আসামী স্নাতক পাশ। তারা ‘আল্লাহর দলের’ নেতা মতিন মেহেদী ওরফে মতিনুল ইসলাম @ মাহাবুব মতিন @ মতিনুল হক মন্ডলের মতাদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে ২০০১ সাল থেকে অত্যন্ত চাটুকারিতার সাথে ‘আল্লাহর দলের’ সক্রিয় সদস্য হিসেবে কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা, ২০০১ সাল থেকে ‘আল্লাহর দল’ এর গাইবান্ধা অঞ্চল এর সাথে সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করে। এছাড়াও ‘আল্লাহর দল’ এর অন্যতম উপজেলা সংগঠক পলাশবাড়ির বাবুল এবং জনৈক হিরুর কাছ থেকে বায়াত গ্রহণ করা এবং নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন নেতা মতিন মেহেদী @ মতিনুল ইসলাম @ মাহাবুব মতিন @ মতিনুল হক মন্ডলের মতাদর্শের অনুসারী বলেও স্বীকার করে।

তারা প্রত্যেকে নিয়মিতভাবে দলের জন্য চাঁদা প্রদান করে এবং ধর্মপ্রাণ মানুষের ধর্মীয় বিশ্বাসকে পুঁজি করে ধর্মের অপব্যাখ্যার মাধ্যমে তাদের আদর্শের অনুকূলে সদস্য এবং চাঁদা সংগ্রহ করে আল্লাহর দলের কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিল। আটককৃতদেও বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে জানিয়ে র‌্যাব জানায়, তাদের সহযোগী অন্যান্যদের ব্যাপারে অনুসন্ধান চলছে।

(এমএস/এসপি/জুন ২৫, ২০২০)

পাঠকের মতামত:

২৩ অক্টোবর ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test