Occasion Banner
E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

মধুবাগের মেয়ে বেগুনবাড়ির ছেলের প্রেম নিয়ে দ্বন্দ্বে শিপন খুন

২০২০ ফেব্রুয়ারি ২৭ ১৫:৫৭:১১
মধুবাগের মেয়ে বেগুনবাড়ির ছেলের প্রেম নিয়ে দ্বন্দ্বে শিপন খুন

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর হাতিরঝিলে বেগুনবাড়ি ব্রিজ এলাকায় ছুরিকাঘাতে রাকিব হাসনাত শিপন (১৮) নামে এক তরুণকে হত্যা ও মানিক (১৬) নামে আরেক তরুণকে জখম করার ঘটনায় তিনজনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)। পুলিশ জানায়, শিপনকে হত্যার কারণ মহল্লাকেন্দ্রিক দ্বন্দ্ব।

বুধবার দিবাগত রাতে ঢাকা ও তার আশপাশের এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার ও হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত ১টি সুইচ গিয়ার চাকু উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছেন– আজাদ, সুজন ও ইব্রাহীম। বৃহস্পতিবার এ বিষয়ে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করেন ডিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মো. আবদুল বাতেন ।

তিনি বলেন, হাতিরঝিলে বেগুনবাড়ি ও মধুবাগ এই দুই এলাকার আধিপত্য বিস্তার নিয়ে এখানকার উঠতি বয়সী ছেলের মধ্যে দ্বন্দ্ব লেগে থাকতো। মধুবাগ এলাকার একটি মেয়ের সাথে বেগুনবাড়ির আজাদের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। পারিবারিকভাবে ২১ ফেব্রুয়ারি ওই মেয়ের বাসায় আজাদের পরিবার বিয়ের প্রস্তাব নিয়ে যায়। বেগুনবাড়ির ছেলে মধুবাগ এলাকার মেয়েকে বিয়ে করবে এই ভেবে মধুবাগের ছেলেরা ক্ষিপ্ত হয়ে আজাদ ও তার পরিবারকে অপমান করে। ওই ঘটনার জের ধরে দুই গ্রুপের মধ্যে দ্বন্দ্ব চরমে পৌঁছায় এবং এর জের ধরেই শিপন হত্যাকাণ্ড সংগঠিত হয়।

হত্যাকাণ্ডের বর্ণনা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, ২৩ ফেব্রুয়ারি রাত ৯টায় শিপন ও তার বন্ধু মানিক মোটরসাইকেলে হাতিরঝিলে ঘুরতে যায়। তারা সোয়া ৯টায় মধুবাগ ব্রিজের মোড়ে এসে ইউটার্ন করে মধুবাগ ব্রিজের দিকে যাওয়ার সময় আসামি ও তাদের সহযোগীরা শিপনকে মোটরসাইকেল থেকে নামায়। আজাদ তার হাতে থাকা সুইচ গিয়ার চাকু দিয়ে শিপনের পেটে জখম করে এবং শিপনকে বাঁচাতে তার বন্ধু মানিক এগিয়ে এলে তাকেও চাকু দিয়ে পেটে জখম করে আজাদ।

অভিভাবকদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে আবদুল বাতেন বলেন, আপনারা পরিবার থেকে আপনাদের সন্তানদের প্রতি খেয়াল রাখবেন। তারা কী করছে, কার সাথে মেলামেশা করছে, তাদের চালচলন ও পোশাকে বখাটেপনা আছে কিনা। এসব বিষয়ে খেয়াল রেখে সন্তানকে পরিবার থেকে নৈতিক শিক্ষা দিলে এমন ঘটনার সম্মুখীন হতে হবে না।

(ওএস/এসপি/ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২০)

পাঠকের মতামত:

০৫ আগস্ট ২০২০

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test