E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

পর্যটকদের ভীড়ে নব যৌবনে কুয়াকাটা সৈকত

২০১৭ জুন ২৯ ১৪:১৫:১৬
পর্যটকদের ভীড়ে নব যৌবনে কুয়াকাটা সৈকত

মিলন কর্মকার রাজু, কলাপাড়া : পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটা সৈকতে ঈদের ছুটিতে পর্যটকদের ঢল নেমেছে। গত তিনদিন ধরে পর্যটকদের ভীড়ে সৈকতের উৎসবের আমেজ। সাগরে জোয়ার-ভাটা, দিন-রাত নেই, সবসময়ই কুয়াকাটা সৈকত পর্যটকদের উম্মাদনায় যেন নব যৌবন ফিরে পেয়েছে।কুয়াকাটার মনোমুগ্ধকর পর্যটন স্পটগুলোতে তিল ধরনের ঠাঁই ছিলো। প্রতিটি স্পটে ছিলো পর্যটকদের পদচারনা। ঈদ ছুটিতে কুয়াকাটা সৈকত যেন প্রাণ ফিরে পেয়েছে।

কুয়াকাটা সৈকতের জিড়ো পয়েন্ট থেকে শুরু হয়ে নারিকেল কুঞ্জ, ইকোপার্ক, ইলিশপার্ক, জাতীয় উদ্যান, শ্রীমঙ্গল বৌদ্ধ বিহার, সীমা বৌদ্ধ বিহার, ফাতরার বনাঞ্চল, গঙ্গামতি, কাউয়ার চর, লেম্বুর চর, শুটকি পল্লী পর্যটকদের আনন্দ উম্মাদনায় আজও আনন্দময় পরিবেশ বিরাজ করছে। কুয়াকাটার হোটেল-মোটেল ব্যবসায়ীদের মতে ঈদ ছুটিতে কুয়াকাটায় লক্ষাধিক পর্যটকের সমাগম হয়েছে।

কুয়াকাটা ঘুরে দেখা যায়, মূল সৈকত জোয়ারে ইট,পাথরের জঞ্জালে পর্যটকদের উৎসব-আনন্দে কিছুটা প্রতিবন্ধকতা সষ্টি করলেও সাগরের জোয়ারের ঢেউয়ের খেলায় তাঁদের দমিয়ে রাখতে পারেনি। সেই সূযদয়ের সাথে শুরু চলছে সূযাস্তের পরও রাত পর্যন্ত পর্যটকদের আনন্দ-উৎসব।

কুয়াকাটায় ভ্রমনে আসা পর্যটক ভোলার কামরুল ইসলাম, ঢাকার নিতাই, সিলেট থেকে আসা আরিফ, দীপা আরিফ দম্পতি জানালেন, এই ঈদ উৎসবে কুয়াকাটা তাঁদের যেন শৈশবে ফিরিয়ে নিয়ে গেছে। সাগরের ঢেউয়ের তালে তালে তাদের সাঁতার কাটা, ঝিনুক কুড়ানো থেকে সৈকতের এ প্রান্ত থেকে অপর প্রান্ত ঘুরে বেড়ানো
কুয়াকাটায়ই সম্ভব। হাজারো মানুষের পদচারনা থাকলে ছিলোনা কোন প্রতিবন্ধকতা। এই বষায় যন প্রকতি যেন নতুন রুপে পর্যটকদের কাছে উপস্থাপন হয়েছে। তবে অপরিস্কার সৈকত ও ইটের জঞ্জাল সাগরে ভাটার সময় অনেককে বিপাকে ফেললেও উৎসবের আনন্দে সেই বিড়ম্বনা একটু কমাতে পারেনি পর্যটকদের উম্মাদনা।

কুয়াকাটার একাধিক ট্যুরিজমের মালিক জানান, এবার প্রচুর পর্যটকের আগমন ঘটেছে। ইতিমধ্যে কুয়াকাটার সব হোটেল-মোটেলের সিটই আগাম বুকিং হয়ে গেছে। আগামী সাত/আটদিন এভাবেই পর্যটকদের আগমন ঘটবে বলে তারা আশা করছেন।

কুয়াকাটার বিলাসবহুল হোটেল সিকদার রিসোর্ট অ্যান্ড ভিলার জেনারেল ম্যনেজান জয়নাল আবেদীন জানান, ঈদ উপলক্ষে আমাদের হোটেলের রুমের মূল্য ছাড় রয়েছে। হোটেলের পক্ষ থেকে গত মঙ্গলবার থেকে লাইফ বারবিকিউ ও ডিনার পার্টি ছাড়াও সুইমিংপুলের ব্যবস্থা রয়েছে।

কুয়াকাটা হোটেল মোটেল ওনার্স এ্যাসোশিয়েশনের সাধারন সম্পাদক মো. মোতালেব শরিফ জানান, ঈদের আগে কুয়াকাটায় পর্যটকদের আগমন কম ছিলো। এই ঈদের ছুটিতে তারা গত এক মাসের লোকসান কাটিয়ে উঠতে পারবেন বলে আশা করছেন। কেননা হোটেলে সিট দিতে তারা এখন হিমশিম খাচ্ছেন। প্রায় হোটেলের সিটই আগাম বুকিং হয়ে গেছে।

কুয়াকাটা ট্যুরিষ্ট পুলিশ জেনের এ এস পি আব্দুল করিম জানান, ঈদ উপলক্ষে পর্যটকদের নিরাপত্তা দিতে আমাদের পুলিশ বিভিন্ন দর্শনীয় স্পটে টহল রয়েছে। এছাড়া সাগরে জোয়ারের পর্যটকদের যাতে কোন ধরনের অসুবিধা না হয় সে জন্য মাইক দিয়ে সতর্ক করা হচ্ছে।

(এমকেআর/এএস/জুন ২৯, ২০১৭)

পাঠকের মতামত:

২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test