E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

ফাহমিদা বাঁচতে চায়

২০১৮ অক্টোবর ০৩ ১৮:১৭:৪৯
ফাহমিদা বাঁচতে চায়

জকিগঞ্জ (সিলেট) প্রতিনিধি : ফুটফুটে মায়াবি চেহারা। বয়স ১২ কি ১৩। ডাগর চোখের জিজ্ঞাসু দৃষ্টি। আর দশটা শিশুর সাথে সেও স্কুলে পড়ে। পার্থক্য এই টুকু সে অন্য সব শিশুর মতো নয় । যে বয়সে তার স্কুলের মাঠ, বাড়ির আঙ্গিনা মাতিয়ে রাখার কথা সে বয়সে তার শরীরে ভর করেছে ভয়ানক ব্যাধি। কিডনীর সমস্যার কারণে হাত, পাসহ পুরো শরীর ফুলে গেছে। অসুস্থতার কারণে স্কুলের পরিবর্তে  হাসপাতালের বিছানায় যন্ত্রণায় কাটছে তার দিনরাত। বলছিলাম সিলেট জকিগঞ্জ উপজেলার কলাকুটা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণীর মেধাবী ছাত্রী ফাহমিদা আক্তারের কথা।  

কিডনীর জটিল রোগে আক্রান্ত হয়ে সে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ৫ম তলার ২২নং ওয়ার্ডের ১০ নম্বর সিটে ৭ সেপ্টেম্বর থেকে চিকিৎসাধীন রয়েছে। হত দরিদ্র পরিবার হওয়ার কারণে সুচিকিৎসার অভাবে তার অবস্থা দিন দিন অবনতির দিকে যাচ্ছে। তার বাবা অস্বচ্ছলতার জন্য তার চিকিৎসার ব্যয়ভার বহন করতে পারছেন না। ফাহমিদার পিতা মোঃ আব্দুর রহমান কলাকুটা গ্রামের বাসিন্দা।

তিনি আগে পাড়ার মসজিদের ইমাম ছিলেন, এখন বেকার। ৬ সন্তানের মধ্যে ফাহমিদা দ্বিতীয়। চোখের সামনে সন্তানের দুরাবস্থা দেখে তিনি হতাশ ও চিন্তিত। আব্দুর রহমানের মোবাইল নম্বর ০১৭৪১১৪৬৩২৪।

মানুষ মানুষের জন্য। জীবন জীবনের জন্য। সমাজের বিত্তবান বা হৃদয়বান ব্যক্তিদের সহানুভ’তির দৃষ্টি ফাহমিদার স্বাভাবিক জীবন ফিরিয়ে দিতে পারে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন প্রায় অর্ধ লক্ষ টাকা হলেই সুস্থ হয়ে উঠতে পারে ফাহমিদা। আপনাদের ক্ষুদ্র সহযোগিতায় হয়ত শিশুটি নতুন জীবন পেতে পারে।

আপনাদের সহযোগিতার জন্য বিকাশ নম্বর-০১৭৩২১৫৯০৩৮।

(এসপি/এসপি/অক্টোবর ০৩, ২০১৮)

পাঠকের মতামত:

১৩ নভেম্বর ২০১৮

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test