শরৎ তুমি

উড়ো-উড়ো মেঘের ভেলায়
শরৎ এলে তুমি,
ভোরের শিশির ঘাসের ডগায়
শান্ত ধরা ভূমি।

শরৎ তোমার আগমনে
কাশ ফুলেরা হাসে,
জল থইথই ঝিলের বুকে
শাপলা শালুক ভাসে।

প্রকৃতিটা তখন যেনো
রূপের রানীর সাজ,
বৃষ্টি ধারায় ভাসিয়ে নেয়া
নয়কো মেঘের কাজ ।

শরৎ এলে চাঁদের আলো
হয় মনোহর অতি,
স্নিগ্ধ রাতের জ্যোছনাযেন
বাড়ায় মনের গতি।

শিউলী ফুলের সুগন্ধী যে
বাতাস থাকে মিশে,
পাগলা হাওয়ায় ঢেউ খেলে যায়
সবুজ ধানের শীষে।