E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

মাধবখালীর উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে কাজ করতে চাই

২০২১ জানুয়ারি ১৭ ১৬:০৫:১২
মাধবখালীর উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে কাজ করতে চাই

মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি : আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন-২০২১কে সামনে রেখে পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জের মাধবখালী ইউনিয়নের সাবেক ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইসলামের ইতিহাস বিভাগের সহকারি অধ্যাপক আবদুল মালেক দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশা করেন। 

নির্বাচনকে সামনে রেখে গ্রামগঞ্জে-পাড়া-মহল্লার বিভিন্ন চায়ের দোকান এমনকি মানুষের মুখে মুখে চলছে স্থানীয় ইউপি নির্বাচন আলাপ-চারিতা। সম্ভাব্য প্রার্থীরা ভোটারদের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছেন প্রতিনিয়ত। সে লক্ষে ইতিমধ্যেই মাধবখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীদের নিয়ে নিজ ইউনিয়নে ব্যাপক গণসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। আবদুল মালেক এ ইউনিয়নের উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পাবার আশা ব্যক্ত করেন।

মাধবখালী ইউনিয়নের সাবেক ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইসলামের ইতিহাস বিভাগের সহকারি অধ্যাপক আবদুল মালেক বলেন, আমি ১৯৯২ সালে ছাত্রলীগের কর্মী হিসেবে ছাত্রলীগে যোগদান এবং বরিশাল বি.এম কলেজে পড়াশুনা অবস্থায় ছাত্রলীগের বিভিন্ন মিছিল মিটিংয়ে অংশ নেই। ১৯৯৬ সালে ও ২০০১ এবং ২০১৮ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মাধবখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কেন্দ্রে নৌকা প্রতিকের এজেন্ট হিসেবে দ্বায়িত্ব পালন করি। ২০০৮ সালের জাতীয় নির্বাচনে মাধবখালী ইউনিয়নে নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির সদস্য সচিব হিসেবে কাজ করেছি এবং ২০০৯ সালের ২২ ডিসেম্বর মাধবখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে ১৫০ ভেটের মধ্যে ৮৬ ভোট পেয়ে সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত হই এবং ২০১৯ সালে মাধবখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে সভাপতি পদে সাবজেক্ট কমিটির ১৮ ভোটের মধ্যে ৭ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছি। তবুও হাল ছেড়ে দেইনি।

তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের রাজনৈতিক আদর্শে অনুপ্রানিত হয়ে পরিবারের সকল সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত রয়েছি। ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের নেতা হওয়াতে ২০০২ সালে বিএনপি জোট সরকারের আমলে আমাকে এম.এ মালেক কলেজ থেকে বরখাস্ত করা হয়। ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত বিভিন্ন ভাবে আমাকে নির্যাতন করা হয়েছে। এমনকি ওই সময়ে ছাগল ও রিক্সা চুরিরও অববাদ দিয়ে আমাকে সমাজে হেয় করা হয়েছে।

তাই, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশা করছি। তাই আওয়ামীলীগ সরকারের উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে আমাকে দলীয় মনোনয়ন দিবেন বলে আমি আশা করছি।

(ইউজি/এসপি/জানুয়ারি ১৭, ২০২১)

পাঠকের মতামত:

০২ মার্চ ২০২১

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test