E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

টঙ্গীতে নাদিম হায়দারের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবি

২০২১ এপ্রিল ২১ ১৮:৪০:৪৬
টঙ্গীতে নাদিম হায়দারের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবি

জসিম উদ্দিন জুয়েল, টঙ্গী (গাজীপুর) : গত ১৪ এপ্রিল আব্দুল জলিল নামের এক রাজ মিস্ত্রিকে মোটরসাইকেল যোগে অপহরণের অভিযোগে নাদিম এন্টার প্রাইজের স্বত্বাধিকারী বীর মুক্তিযোদ্ধা আঃ হালিমের সন্তান মোঃ নাদিম হায়দারকে আটক করে টঙ্গী পশ্চিম থানা পুলিশ। 

এজাহার সূত্রে জানা যায় মোসাঃ মাকসুদা (৫০) তার স্বামী আব্দুল জলিলকে অপহরণ ও চাঁদার দাবিতে থানায় অভিযোগ করলে নাদিমের বিরুদ্ধে ৩৬৫/৩৮৫/৩৪ পেনাল কোড এবং একই উদ্দেশ্যে চাঁদা দাবির অভিযোগে টঙ্গী পশ্চিম থানায় মামলা দায়ের হয়। ১৫ই এপ্রিল ৫৩ নং কাঠালদিয়ার ভাড়াটিয়া অপহৃত জলিল ও তার স্ত্রীর মাকসুদা সংবাদকর্মীদের কাছে একটি ভিটিও সাক্ষাৎকার দেয়। সেই সাক্ষাৎকারের সূত্র ধরে জন্ম নেয় নানা জল্পনা-কল্পনা।

নাদিম হায়দার একজন ট্রেড লাইসেন্সকৃত ঠিকাদার। তিনি নাদিম ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপ, মেসার্স নাদিম এন্টার প্রাইজ, নাদিম পাওয়ার জেনারেটর সার্ভিস, সুন্দর জীবন মাদকাসক্ত পুনর্বাসন, সহায়তা ও পরামর্শ কেন্দ্রের ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

বুধবার সকাল ১০টায় সুন্দর জীবন মাদকাসক্ত পুনর্বাসন, সহায়তা ও পরামর্শ কেন্দ্রের উপদেষ্টা মোঃ খায়রুল হাসান বাবু সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যের মাধ্যমে সাংবাদিক সমাজ, আইন প্রয়োগকারী সংস্থা সহসকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করে প্রশ্ন রাখেন, অভিযোগকারী একজন রাজমিস্ত্রী যার দৈনিক হাজিরা ৬০০/৭০০ টাকা। তাকে ১৫ তারিখ মোটরসাইকেল যোগে দুইজনের মাঝে বসিয়ে হাত, পা, চোখ বাধা অবস্থায় ৫.৩০ টায় শাহাজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের সামনে অক্ষত অবস্থায় ফেলে যায়। অথচ লকডাউন চলাকালে প্রকাশ্য দিবালোকে যেখানে রাস্তার মোড়ে মোড়ে টহল সেখানে এতো ভিআইপি এলাকায় এভাবে এনে ছেড়ে দেয়া কিভাবে সম্ভব? কিভাবেই বা পরিবারের কারো কাছে চাঁদা না চেয়ে কেবল তার কাছে চাঁদা চেয়ে অতঃপর পরেরদিন ছেড়ে দেয়?

ভিডিও সাক্ষাৎকারে অভিযোগকারী নিজেই বলেছে, নাদিম হায়দার এই ঘটনায় জড়িত বলে তারা স্বীকার করেন না। ১৭ ই এপ্রিল রাত ১০.৩০মি. নাদিম হায়দারকে থানায় যেতে বললে তিনি নিজেই থানায় গেলে পুলিশ তাকে আটক করে। তাহলে বোঝাই যায় এখানে ষড়যন্ত্র কাজ করছে।

নাদিম হায়দারকে নির্দোষ দাবী করে বলেন, আজ ১৪-১৫ বৎসর যাবত আইন মেনে কর দিয়ে সুনামের সহিত ব্যবসা পরিচালনা করে আসছেন এবং শতশত মাদক সেবী যুবককে নাদিম হায়দার সুস্থ পথে ফিরিয়ে এনেছেন।

উল্ল্যেখ্য, নাদিম হায়দারকে আটকের পর হতেই ফেইসবুকে বহু মানুষষ ড়যন্ত্র উল্লেখ করে তার মুক্তি দাবি করছে। মোঃ নাদিম হায়দার গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৫৩ নং ওয়ার্ড দেওড়া এলাকা নিবাসী।

বুধবার টঙ্গী প্রেসক্লাবের সামনে এলাকার তরুণ, যুবক, বৃদ্ধ, নারীসহ হাজারো মানুষ তার মুক্তির জন্য শান্তিপূর্ণ মানববন্ধন করে।

এলাকাবাসী বলেন, নাদিম হায়দার করোনাকাল শুধু নয় সর্বদা গরীব ও অসহায় মানুষকে নিরবিচ্ছিন্ন সাহায্য সেবা করেন। তিনি মসজিদ মাদ্রাসাসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অবদান রাখেন। এলাকায় তাকে একজন দানবীর লোক হিসেবে আমরা ভালোবাসি। আমরা তার মুক্তির দাবী করছি। মোঃ নাদিম হায়দার একজন সম্ভ্রান্ত রাজনৈতিক পরিবারের সন্তান।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, এড. সাইফুররহমানমিশু, মো: জামাল হোসেন, মো: আবুলমন্ডল, মো: বাবুল হোসেন, সৈয়দ শামসুল হক, মাসুদ রানা, রবিন হোসেন, জয় চৌধুরী মাদব প্রমুখ।

(জে/এসপি/এপ্রিল ২১, ২০২১)

পাঠকের মতামত:

০৭ মে ২০২১

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test