E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Technomedia Limited
Mobile Version

উজিরপুরে পুজার সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে হামলায় ইউপি সদস্যসহ ১০ জন আহত

২০২৩ জানুয়ারি ২৮ ১৮:২৫:২৬
উজিরপুরে পুজার সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে হামলায় ইউপি সদস্যসহ ১০ জন আহত

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, বরিশাল : সরস্বতী পুজার সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে কথিত ছাত্র ও যুবলীগ নেতাকর্মীদের উৎশৃংখল আচড়নের প্রতিবাদ করায় তিন দফায় হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে এক ইউপি সদস্যসহ কমপক্ষে ১০ জনকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।

হামলার ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে আটটার দিকে জেলার উজিরপুর উপজেলার সাতলা ইউনিয়নের পটিবাড়ি বিনয় বাজারে। হামলায় গুরুত্বর আহত চারজনকে পাশ্ববর্তী আগৈলঝাড়া উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এসময় ওই এলাকার হিন্দু সম্প্রদায়ের মাঝে চরম আতঙ্ক ছড়িয়ে পরে।

শনিবার দুুপুরে উজিরপুর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) মো. তৌহিদুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছানোর আগেই হামলাকারীরা পালিয়ে গেছে। তিনি আরও বলেন, হামলার ঘটনায় এখনও কেউ থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেননি। অভিযোগ পেলে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও আহত সূত্রে জানা গেছে, স্বরস্বতি পূজা উপলক্ষে বৃহস্পতিবার রাতে পটিবাড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠান চলাকালীন স্থানীয় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতির অনুসারী ছাত্র ও যুবলীগের কর্মী পরিচয়দানকারী সাইফুল ইসলাম, আশিকুল, শরিফুল খাইরুল ও মেহেদী হাসানসহ তাদের অন্যান্য সহযোগিরা মঞ্চে উঠে উৎশৃংখল আচড়ন শুরু করে। এসময় স্থানীয় ইউপি সদস্য অমল মন্ডলসহ অন্যান্যরা তাদের আচড়নের প্রতিবাদ করে অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকে নামিয়ে দেয়।

এ ঘটনার জেরধরে শুক্রবার দিবাগত রাত সাড়ে আটটার দিকে ৯নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি নিপু পাইক, আলী হাওলাদার, হরশিত মন্ডল ওরফে কদম মন্ডল, সাইফুল ইসলাম, আশিকুল, শরিফুল খাইরুল, মেহেদী হাসান, আবির হোসেন, সাগরসহ তাদের ১৫/২০ জন সহযোগীরা ধারালো অস্ত্র ও লাঠিসোঠা নিয়ে বিনয় বাজারে প্রবেশ করে। এসময় তারা বাজারে বসে ইউপি সদস্য অমল মন্ডল, তার ভাই শ্যামল মন্ডল, হৃদয় মন্ডল ও অঙ্কন মন্ডলের ওপর হামলা চালায়। এসময় স্থানীয়রা তাদের নিবৃত্ত করতে চাইলে হামলাকারীরা এলোপাথারী হামলা চালায়। তাদের হামলায় কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে ইউপি সদস্য অমল মন্ডল, তার ভাই শ্যামল মন্ডল, হৃদয় মন্ডল ও অঙ্কন মন্ডলকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ইউপি সদস্য অমল মন্ডল বলেন, হামলার পর স্থানীয়রা একজোট হয়ে ধাওয়া করলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে গেলেও আবির মিঞা ও সাগর মিঞা নামের দুইজনকে আটক করা হয়। খবর পেয়ে সাতলা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি খায়রুল বাশার লিটন আটক হামলাকারীদের ছাড়িয়ে নিয়ে যায়।

(টিবি/এসপি/জানুয়ারি ২৮, ২০১৩)

পাঠকের মতামত:

২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test