E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

দিনাজপুরে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন 

২০২৩ এপ্রিল ০১ ১৬:৪৬:০৩
দিনাজপুরে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন 

শাহ্ আলম শাহী, দিনাজপুর : দিনাজপুরের বীরগঞ্জেবালু মহলে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধ ও নতুন করে ইজারা না দেয়ার দাবিতে মানববন্ধন ও জেলা প্রশাসককে স্বারকলিপি দিয়েছে ক্ষুতিগ্রস্থ কৃষক এবং এলাকাবাসী। 

আজ শনিবার সকালে বীরগঞ্জের ঝাড়বাড়ী-জয়গঞ্জ খেয়াঘাট হতে উল্লেখিত মৌজার পাশদিয়ে বয়ে যাওয়া আত্রাই নদীর বলদিয়া পাড়া বালুমহালে মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন বন্ধ ও নতুন করে ইজারা না দেয়ার দাবিতে এ মানববন্ধন করে ক্ষতিগ্রস্থ কৃষক ও এলাকাবাসী। পরে জেলা প্রশাসককে এবিষয়ে স্মারক লিপি প্রদান করা হয়।

মানববন্ধনকারিরা অভিযোগ করে জানান, নদীর স্বাভাবিক স্তরে পর্যাপ্ত বালু না থাকায় নদীর তীরবর্তী এলাকা ঘেষে ড্রেজার মেশিন দিয়ে অস্বাভাবিক গভীরতা করে বালু উত্তোলন করার ফলে নদীর স্বাভাবিক গতিপথ পরিবর্তন হয়ে পশ্চিম দক্ষিণ পার্শ্বের পাড় ভেঙ্গে ইতোমধ্যে ২৫ একরের মতো আবাদি জমি নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে এবং আরো ৫০০ একরের মতো জমি নদীগর্ভে বিলীন হওয়ার উপক্রম হয়েছে। এতে পরিবেশের চরম বিপর্যয় ঘটছে।

মানববন্ধনে অংশ নেন, বীরগঞ্জ উপজেলাধীন ৩নং শতগ্রাম ইউনিয়নের প্রসাদপাড়া, গড়ফতু, বলদিয়াপাড়া, ধুলাউড়ী, কাশিমনগর গ্রামের বাসিন্দা ও কৃষকবৃন্দ।

এর আগে এ বিষয়ে ১৫ ডিসেম্ব দিনাজপুর জেলার বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের সহ সভাপতি ও ঝাড়বাড়ী কলেজের সাবেক সহকারী অধ্যক্ষ মোঃ মোশাররফ হোসেন ও কৃষক নেতা আবু বক্কর সিদ্দিকের নেতৃত্বে ১০ জন কৃষকের প্রতিনিধি দল জেলা প্রশাসকে স্বারকলিপি দেন।

একই বিষয়ে ইতিপূর্বে বীরগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী অফিসার বরাবর গত ১৭/০৪/২০২১ইং এবং ০৭/১১/২০২২ইং তারিখে আবেদনের মাধ্যমে অবগত করা হয়। ছাড়াও ক্ষতিগ্রস্থ কৃষকগণ গত ১১/১২/২০২২ইং তারিখে জমি রক্ষা করার জন্য মানব বন্ধন কর্মসূচী পালন করে।

এলাকার আব্দুল জলিম, মোতালেব, জাকির, আজিম উদ্দিন, শরিফ, মোকলেস সহ অনেকে অভিযোগে বলেন, আগামী দিনের বৈশ্বিক অর্থনৈতিক মন্দা ও সম্ভাব্য দুভির্ক্ষ মোকাবেলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যখন যার যেখানে সামন্যতম পতিত জমি আছে সেখানে খাদ্য উৎপাদনের জন্য জোর তাগিদ দিয়েছেন। অথচ এভাবে বালু উত্তোলনের ফলে শতশত একর আবাদি জমি নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাবে, ব্যাহত হবে খাদ্য উৎপাদন, প্রভাব পড়বে জাতীয় অর্থনীতিতে, চরম ক্ষতিগ্রস্থ হবে এখানকার সাধারণ কৃষকগণ। যা কোন মতেই কাম্য নয়।

(এস/এসপি/এপ্রিল ০১, ২০২৩)

পাঠকের মতামত:

২২ জুন ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test