E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ

যশোরে পুলিশের কালো টাকা সাদা করতে যুবককে ব্যবহার 

২০২৩ সেপ্টেম্বর ২৭ ১৮:২৩:৩৮
যশোরে পুলিশের কালো টাকা সাদা করতে যুবককে ব্যবহার 

স্বাধীন মুহাম্মদ আব্দুল্লাহ, যশোর : যশোরে পুলিশের কালো টাকা সাদা করতে এক যুবককে ব্যবহার করা হত বলে অভিযোগ তুলা হয়েছে। পুলিশের এক উপ-পরিদর্শকের বিরুদ্ধে নির্যাতনের অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছেন সেই যুবক। জানা গেছে ওই যুবকের নাম উজ্জ্বল বিশ্বাস (৩২)। পেশায় তিনি একজন ব্যবসায়ী। তার অভিযোগ যশোর পুলিশ লাইনের রিজার্ভ অফিসে কর্মরত উপ পরিদর্শক (এএসআই) আশীষ এর বিরুদ্ধে।

আজ বুধবার সকালে ওই যুবক প্রেসক্লাব যশোরের হল রুমে উপ-পরিদর্শক আশীষের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে।

সংবাদ সম্মেলনের লিখিত বক্তব্যে তিনি জানান, আশীষ ওই যুবকের সাথে সম্পর্ক স্থাপন করে তার একাউন্টের মাধ্যমে কালো টাকা লেনদেন করেছে। ধারাবাহিকভাবে এ কাজ করতে অস্বীকৃতি জানানোয় তার উপর নির্যাতন শুরু হয়। এখন তিনি প্রাণভয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। তার যশোর শহরতলীর পালবাড়ি মোড়ে ইলেকট্রনিক্সের দোকান রয়েছে। দোকানে কাজের সুবাদে আসা-যাওয়া করায় এএসআই আশীষের সাথে তার পরিচয় হয়। তিনি উজ্জ্বল বিশ্বাসের সাথে ছোট ভাই হিসেবে সম্পর্ক স্থাপন করেন। পরবর্তীতে এএসআই আশীষ ব্যস্ত থাকার অজুহাতে উজ্জ্বল বিশ্বাসের অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে ছোটখাটো লেনদেন শুরু করেন। একপর্যায়ে তার একাউন্টে লাখ লাখ টাকা লেনদেন শুরু করেন। একদিন পুলিশের ২ সদস্য এএসআই আশীষের জন্য তার কাছে ১৪ লাখ টাকা রেখে যান। এরপর আশীষ ফোন করে ওই টাকা উজ্জ্বলের ব্যাংক একাউন্টে জমা রাখতে বলেন। পরবর্তীতে সেই টাকা বিভিন্ন একাউন্টে ট্রান্সফার করা হয়।

উজ্জ্বল বিশ্বাস আরো জানান, এএসআই আশীষ ২০২২ সালের নভেম্বর মাস থেকে ২০২৩ সালের জুলাই মাস পর্যন্ত তার একাউন্ট ব্যবহার করে প্রায় ৬৫ লাখ টাকা লেনদেন করেছে। এত টাকা লেনদেনের বিষয়টি সন্দেহজনক হওয়ায় উজ্জ্বল বিশ্বাস ধারাবাহিক এ লেনদেন করতে অস্বীকৃতি জানান। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে উজ্জ্বল বিশ্বাসের উপর নির্যাতন শুরু করে এএসআই আশীষ। তিনি উজ্জলের দোকানে ভাঙচুর করে সিসি ক্যামেরার হার্ডডিক্স ও পাসওয়ার্ডসহ দুটি ব্যাংকের কার্ড ছিনিয়ে নেয়। পাশাপাশি পাঁচ লাখ টাকার একটি চেকে এবং ফাঁকা স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর করিয়ে নেয়। এখন এএসআই আশীষ ২৫ লক্ষ টাকা পাবে দাবী করে আটক ও গুমের হুমকি দিচ্ছে। এএসআই আশীষ নিজেকে ডিআইজির লোক পরিচয় দিয়ে হুমকি ধামকি অব্যাহত রেখেছে। এ অবস্থায় উজ্জ্বল বিশ্বাস প্রাণ রক্ষায় পালিয়ে বেড়াচ্ছেন।

এদিকে অভিযোগের বিষয়ে জানতে এএসআই আশীষকে কয়েকদফা ফোন করলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি। অন্যদিকে পালটা অভিযোগ এনে যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) বেলাল হোসাইন বলেন, যিনি পুলিশের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে, সেই উজ্জল বিশ্বাসের নামে অনেক অভিযোগ রয়েছে। সে মাদকসহ অবৈধ কার্যক্রমের সঙ্গে জড়িত। বিষয়টি অন্যপথে নিতে তিনি পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছে। আর নির্যাতন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বিষয়টি জানা নেই।

(এসএ/এসপি/সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২৩)

পাঠকের মতামত:

২১ জুন ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test