E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

সুবর্ণচরে শারদীয় দুর্গা পূজার প্রস্তুতি সভা

২০২৩ অক্টোবর ১০ ১১:১৪:১৭
সুবর্ণচরে শারদীয় দুর্গা পূজার প্রস্তুতি সভা

মোঃ ইমাম উদ্দিন সুমন, নোয়াখালী : নোয়াখালীর সুবর্ণচরে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের আসন্ন শারদীয় দুর্গোৎসব ২০২৩ পালনের লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় কর্মসূচি প্রণয়নের জন্য প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

গত সোমবার সকাল সাড়ে ১১টায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ আল আমিন সরকার এর পরিচালনা ও সভাপতিত্বে উপজেলা মিলনায়তনে এ প্রস্তুতি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

প্রস্তুতি সভায়,পাঁচ দিনব্যাপী (২০-২৪ অক্টোবর পর্যন্ত) শারদীয় দুর্গোৎসব পালনকে কেন্দ্র করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণসহ বহুবিধ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সিদ্ধান্তের মধ্যে রয়েছে মহালয়ায় নিরাপত্তা জোরদারসহ পুরো দুর্গাপূজায় সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থাপনা জোরদার করা। এখন থেকেই প্রতীমা তৈরির স্থানসমূহে নিরাপত্তা প্রদান করা। ২০ থেকে ২৪ অক্টোবর পর্যন্ত মূলপর্বে এবং পূজা বিসর্জন পরবর্তী নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। প্রতীমা বিসর্জনের সর্বোচ্চ সময় দশমীর দিন বিকাল ৫টা পর্যন্ত সিদ্ধান্ত হয়েছে।

এ বছর নোয়াখালীর সুবর্ণচরে ৭টি ইউনিয়নে ২৮টি পূজা মন্ডমে দুর্গাপূজার উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে সার্বক্ষণিক মনিটরিং টিম থাকবে। প্রত্যেক ইউনিয়নে একজন করে ট্যাগ অফিসার নিযুক্ত থাকবে।পূজামন্ডপে সিসি ক্যামেরা শতভাগ নিশ্চিত করার সিদ্ধান্তও গৃহীত হয় সভায়। চরজব্বার থানা অফিসার ইনচার্জ এর তত্বাবধানে একটি হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের মাধ্যমে যোগাযোগ ও সার্বিক পরিস্থিতি নজরদারীর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। প্রতিটি পূজামন্ডপে নিরাপত্তার জন্য পুলিশবাহিনীর সদস্য-উপ পরিদর্শক এবং সহকারী উপ পরিদর্শকের সমন্বয়ে টহল টিম থাকবে।

এছাড়া উৎসবটি শান্তিপূর্ণ ভাবে পালন উপলক্ষ্যে প্রতিটি পূজামন্ডপে সার্বক্ষণিক আনসার সদস্য মোতায়েনসহ বিদ্যুতের সর্বোচ্চ সরবরাহ নিশ্চিত করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। বিদ্যুতের বিকল্প হিসেবে জেনারেটর রাখার পরামর্শ আলোচনায় উঠে আসে।

অতিরিক্ত গুরুত্বপূর্ণ পূজামন্ডপে নারী পুরুষ সদস্য মিলে ৮জন আনসার সদস্য, মোটামুটি গুরুত্বপূর্ণ মন্ডপে ৪ জন এবং কম গুরুত্বপূর্ণ মণ্ডপে ৪জন আনসার সদস্য মোতায়েন করা থাকবে। ফায়ার সার্ভিস যোগাযোগ নাম্বারসহ অগ্নিনির্বাপক যন্ত্র নিয়ে প্রস্তুত থাকবে সুবর্ণচর ফায়ার সার্ভিস টিম।

বিসর্জনের পাঁচ দিন পূর্ব হতে বিসর্জনের দিন পর্যন্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টহল থাকবে, সাথে সাথে স্টেয়ারিং ফোর্স থাকবে এবং অভিযোগের ভিত্তিতে ফোর্স জায়গায় পৌঁছে যাবে। পূজা কমিটির লোকদের সাথে মতবিনিময়ের জন্য ইসলামিক ফাউন্ডেশনকে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

প্রস্তুতিমূলক সভায় সভাপতির বক্তৃতায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার বলেন, যে সিদ্ধান্ত বা মতামতগুলো উঠে এসেছে তা যদি আমরা বাস্তবায়ন করতে পারি তাহলে চমৎকার একটি উৎসব করা সম্ভব। অপতৎপরতা রোধ করতে আমাদের সজাগ থাকতে হবে। সোশ্যাল মিডিয়ায় গুজব সম্পর্কে সতর্ক থাকতে হবে। সেটা যাচাই-বাছাই করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ বা ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। আমরা সবাই যদি সজাগ থাকি তাহলে দুশ্চিন্তার কিছু নেই।

প্রস্তুতি সভায়, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এএইচএম খায়রুল আনম চৌধুরী সেলিম, ভাইস চেয়ারম্যান ফরহাদ হোসেন বাহার চৌধুরী, সহকারী কমিশনার (ভূমি) অশোক বিক্রম চাকমা, মুক্তি যোদ্ধা কমান্ডার আবুল মোবারক, জেলা হিন্দু বৌদ্ধ ঐক্য পরিষদ সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমার দাস, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন, এলজিইডি কর্মকর্তা শাহজালাল, কৃষি কর্মকর্তা হারুনুর রশিদ, সমাজ সেবা কর্মকর্তা নুর নবী, চরজব্বর থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি হুমায়ুন কবির, সকল ইউপি চেয়ারম্যান, পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি, পূজা মন্ডপের সভাপতি- সাধারণ সম্পাদক পুরোহিত, শিক্ষক, বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকতা, রাজনীতিবিদ,সাংবাদিকসহ সকল শ্রেণী পেশার মানুষ অংশগ্রহন করেন।

(এস/এসপি/অক্টোবর ১০, ২০২৩)

পাঠকের মতামত:

১৬ জুলাই ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test