E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

গোপালগঞ্জের দুটি উপজেলায় বিজয়ী হলেন যারা

২০২৪ মে ২১ ২৩:৪৫:৫৩
গোপালগঞ্জের দুটি উপজেলায় বিজয়ী হলেন যারা

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি : ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী ও মুকসুদপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে কাশিয়ানী উপজেলায় দোয়াত কলম প্রতিক নিয়ে কাশিয়ানী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি  বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মোক্তার হোসেন এবং মুকসুদপুর উপজেলা ঘোড়া প্রতিক নিয়ে মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য মো. কাবির মিয়া বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া কাশিয়ানী উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে মো. জামিনুর রহমান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে জিনাত রেহানা খান এবং মুকসুদপুর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে শাহারিয়ার কবির ও তানিয়া আক্তার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন।

মঙ্গলবার রাতে রিটার্নিং কর্মকর্তা ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো. গোলাম কবিরর তাদেরকে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত ঘোষনা করেন। আজ সকাল ৮টা থেকে একটানা ভোট গ্রহন শুরু হয়ে চলে বিকাল ৪টা পযর্ন্ত। এরপর শুরু হয় ভোট গনণা।

কাশিয়ানী :
কাশিয়ানী উপজেলার ৭৫টি কেন্দ্রের ফলাফল ঘোষনা করা হয়। এসব কেন্দ্রের ফলাফলে কাশিয়ানী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মোক্তার হোসেন দোয়াত কলম প্রতিক নিয়ে ৩২ হাজার ৫৩৫ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি কাশিয়ানী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক অর্থ বিষয়ক সম্পাদক মুন্সি ফররুখ হোসাইন মিন্টু আনারস প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ২৮ হাজার ১১২ ভোট। কাজী নুরুল আমিন মোটরসাইকেল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ২৫ হাজার ৫৫৭ ভোট।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে মো. জামিনুর রহমান উড়োজাহাজ প্রতিক নিয়ে ৩৬ হাজার ১৫১ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি দীনবন্ধু মন্ডল তালা প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ২১ হাজার ২১২ ভোট। আবুল কালাম আজাদ টিউবওয়েল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ১৮ হাজার ৯৭২ ভোট। সুলতান আহমেদ মোল্যা চশমা প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৮ হাজার ১৬৯ ভোট।

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে জিনাত রেহানা খান প্রজাপতি প্রতিক নিয়ে ২৭ হাজার ১৯২ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি সোহাগী রহমান মুক্তা পদ্ম ফুল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ২৫ হাজার ৭৬১ ভোট। মোছা. শামচুন্নাহার হাঁস প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ২৫ হাজার ৩৯৯ ভোট। তুলি আক্তার ফুটবল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৬ হাজার ৩০৪ ভোট।

মুকসদুপুর :
মুকসুদপুর উপজেলায় রয়েছে ৯৬টি কেন্দ্র। এসব কেন্দ্রের ফলাফলে মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য মো. কাবির মিয়া ঘোড়া প্রতিক নিয়ে ৫৪ হাজার ৫৫৪ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি মুকসুদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম এম মহিউদ্দিন আহম্মদ মোটর সাইকেল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৪২ হাজার ৮১১ ভোট। আবুল কাসেম রাজ দোয়াত কলম প্রতিক নিয়ে পান ২৮ হাজার ৫৪২ ভোট। মো. কাইমুজ্জামান রানা আনারস প্রতিক নিয়ে পান ৩ হাজার ২১৫ ভোট।

এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে শাহারিয়ার কবির চশমা প্রতিক নিয়ে ৩৩ হাজার ৮৮৩ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি মোহাম্মদ রবিউল ইসলাম উড়োজাহাজ প্রতিক নিয়ে পান ৩২ হাজার ৭১৫ ভোট। সঞ্জিত সরকার টিউবওয়েল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৩১ হাজার ৭৪ ভোট। মো. দুলাল মুন্সী মাইক প্রতিক নিয়ে পেয়েছে ২৫ হাজার ৬১১ ভোট। দুলাল হোসেন তালা প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৪ হাজার ৩৩২ ভোট।

অন্যদিকে, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে তানিয়া আক্তার হাঁস প্রতিক নিয়ে ৬২ হাজার ৪৫২ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী নাজমা বেগম কলস প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ৪৫ হাজার ৮৫৬ ভোট। রিনা বেগম ফুটবল প্রতিক নিয়ে পেয়েছেন ১৭ হাজার ৯৯৩ ভোট।

(এমএস/এএস/মে ২১, ২০২৪)

পাঠকের মতামত:

২৫ জুন ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test