E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

এসিআই কোম্পানির কর্মকর্তাদের অভিনব প্রতারণা থেকে রেহাই পেতে ভুক্তভোগী পরিবেশকের সংবাদ সম্মেলন

২০২৪ জুন ০৯ ১৯:৩৮:৫৮
এসিআই কোম্পানির কর্মকর্তাদের অভিনব প্রতারণা থেকে রেহাই পেতে ভুক্তভোগী পরিবেশকের সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার, টাঙ্গাইল : এসিআই কোম্পানির কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্তৃক ব্যববসায়ীকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত ও মিথ্যে মামলায় জর্জরিত হওয়ার প্রতিবাদে আজ রবিবার (৯ জুন) সকালে সংবাদ সম্মেলন করেছেন মেসার্স মাহী এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মোঃ শফিকুল ইসলাম খান। এ সময় তিনি উপস্থিত সাংবাদিকদের লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন শোনান।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, গত ২০১৫ সাল থেকে এসিআই কোম্পানির কনজুমার গ্রুপের পরিবেশক হিসেবে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছেন। এসময় কোম্পানির প্রতিনিধি এস এম সেলিম রেজা ডাচ্ বাংলা ব্যাংক টাঙ্গাইল শাখার অনুকূলে ৫ (পাঁচ) টি সাদা চেক ও প্রতিষ্ঠানের পক্ষে সাদা প্যাড জমা নিয়েছেন। পরবর্তীতে কোম্পানির কর্মকর্তাগণের যোগসাজশে ব্যবসা বিকেন্দ্রীকরণ করার চেষ্টা করেন ও আমাকে গোডাউন ভাড়া ও আমার পরিবেশন এলাকার বাইরে পণ্য বিক্রি করে কোম্পানির নির্ধারিত কমিশন পাইয়ে দেবার ব্যবস্থা করে দেবার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ব্যবসা পরিচালনা করেন।

এ সময় আমার প্রতিষ্ঠানকে যুক্ত করে ৩ কোটি ৬৩ লক্ষ টাকার পণ্য কোম্পানির কর্মকর্তা মোঃ জাকির হোসেন স্বাক্ষর করে গ্রহণ করেন যা আমার রেজিস্ট্রার খাতায় লিপিবদ্ধ আছে। পণ্য বিক্রয় বেশি দেখিয়ে কৌশলে আমার প্রতিষ্ঠানকে কোম্পানির 'সুপার ডিপো' করে দিবে বলে আমার কাছ থেকে পর্যায়ক্রমে ২ কোটি টাকার পেঅর্ডার ও স্বাক্ষরিত ২০ টি সাদা চেক ও প্রতিষ্ঠানের প্যাড নিয়ে নেন । প্রতারক কর্মকর্তাগণের যোগসাজশে ২ কোটি টাকার পেঅর্ডারটি নিজেদের আইডিতে কোম্পানির হিসেবে জমা করেন। পরে যখন আমি আমার ২ কোটি টাকা ফেরত পাওয়ার জন্য চাপ দেই তখন তারা আমার জমাকৃত চেক ব্যাংকে জমা দিয়ে চেক ডিজঅনার করিয়ে এসিআই কোম্পানির মাধ্যমে ঢাকা জজ কোর্টে চেক ডিজঅনার মামলা করেন। পরবর্তীতে আমি উপায়ান্তর না দেখে উপযুক্ত প্রমাণ সাপেক্ষে অভিযুক্তদের প্রতারণার বিরুদ্ধে টাঙ্গাইল সদর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করি।

তিনি জানান, আমার রজ্জু কৃত মামলায় অপরাধ প্রমাণিত হয়ে অভিযুক্তদের জামিন নামঞ্জুর করে বিজ্ঞ আদালত তাদেরকে জেলহাজতে প্রেরণ ও শর্তাসাপেক্ষে ১ জন আসামির জামিন মঞ্জুর করেন । মামলার ১ নং আসামি আদালতে উপস্থিত না হওয়ায় তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি হয়। পলাতক আসামি জাকির হোসেন সরকারকে দ্রুত গ্রেফতার করে বিচারের আওতায় আনার জন্য ও অন্যান্য আটককৃত আসামিগণ যাতে বিচার কার্য শেষ না হওয়া পর্যন্ত জামিন না দেয়া হয় এটাই প্রত্যশা করছি। তাছাড়া আমার বিরুদ্ধে আনীত মিথ্যা চেক ডিজঅনার মামলা প্রত্যাহার ও বিনা নোটিশে বন্ধ করে দেওয়া আমার ব্যবসায়ীক প্রতিষ্ঠানের আর্থিক ক্ষতিপূরণ কোম্পানির কাছে দাবি করছি।

তিনি উপস্থিত সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, ন্যায় বিচার প্রাপ্তিতে সরেজমিনে তথ্য সংগ্রহ পূর্বক সত্য উদঘাটন করে জাতির সামনে তুলে ধরে আমাকে সকল প্রকার হয়রানি ও মানহানিকর মিথ্যে মামলা হতে অব্যহতি ও উল্লেখিত কোম্পানি হতে ব্যবসায়ীকভাবে আর্থিক ক্ষতিপূরণ পাওয়ার জন্য সহযোগিতা করবেন।

এসময় সংবাদ সম্মেলনে মেসার্স মাহী এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মোঃ শফিকুল ইসলাম খান ( সোহেল)সহ তার সহকর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।

(এসএএম/এএস/জুন ০৯, ২০২৪)

পাঠকের মতামত:

২৩ জুলাই ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test