E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Walton New
Mobile Version

কোটালীপাড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে আহত ২৫, বাড়িঘর ভাঙচুর

২০২৪ জুন ২১ ১৭:৪৭:৩২
কোটালীপাড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে আহত ২৫, বাড়িঘর ভাঙচুর

তুষার বিশ্বাস, গোপালগঞ্জ : গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’ গ্রুপের সংঘর্ষে কমপক্ষে ২৫ জন আহত ও বাড়িঘর ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। আহতদের কোটালীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কেমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে। 

আজ শুক্রবার উপজেলার হিরণ ইউনিয়নের বর্ষাপাড়া গ্রামে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে বর্ষাপাড়া গ্রামের ইউপি সদস্য ইব্রাহিম ফকিরের সাথে একই গ্রামের মোকসেদ মাস্টারের কথা বাকবিতন্ডা হয়। এনিয়ে ইব্রাহিম ফকির ও মোকসেদ মাস্টারের লোকজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন।

সংঘর্ষে উভয় পক্ষের কমপক্ষে ২৫জন আহত হয়। গুরুতর আহত হাবিবুর রহমান ফকির (২৭), হাসমত ফকির (২৯), মোহাম্মদ উল্লাহ (২৭), দুলাল ফকির (৫০), হামিদুল্লাহ ফকির (২৫), আব্বাস আলী (৪২), ইয়াছিন ফকির (২৭), সবুজ ফকির (৪৫), সজিব ফকির (২৫), রিপন ফকির (২৬), সাফায়েত ফকির (২৬), সুফিয়ান ফকির (২০), জুলহাস ফকির(২৪), সামিউল ফকির (৩০), মেহেদী ফকির (২৫), মিন্টু ফকির (৩৫), আবদুল্লাহ ফকির (২৫), তারিক ফকির (৩২)কে কোটালীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রেসহ বিভিন্ন ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে।

ইউপি সদস্য ইব্রাহিম ফকির বলেন, মোকসেদ মাস্টারের লোকজন আমার লোকজনের উপর হামলা চালিয়ে মারধর করেছে। এই মারধরে কমপক্ষে আমার ১৫জন লোক আহত হয়েছে।

মোকসেদ মাস্টার বলেন, ইউপি সদস্য ইব্রাহিম ফকিরের লোকজন আমার লোকজনের বাড়ি ঘরে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। এ সময় আমার লোকজন বাঁধা দিতে গেলে উভয় পক্ষের মাঝে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

কোটালীপাড়া থানার ওসি মুহাম্মদ ফিরোজ আলম বলেন, এলাকার পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। কোন পক্ষ থেকেই এখন পর্যন্ত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

(টিবি/এসপি/জুন ২১, ২০২৪)

পাঠকের মতামত:

২২ জুলাই ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test