E Paper Of Daily Bangla 71
Janata Bank Limited
Transcom Foods Limited
Mobile Version

বিচ্ছিন্ন ও বিক্ষিপ্ত আন্দোলন মুখ থুবড়ে পড়তে বাধ্য 

২০২১ ফেব্রুয়ারি ২৪ ১৪:২৯:৩০
বিচ্ছিন্ন ও বিক্ষিপ্ত আন্দোলন মুখ থুবড়ে পড়তে বাধ্য 

আবীর আহাদ


বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সাংবিধানিক স্বীকৃতি, ভুয়ামুক্ত মুক্তিযোদ্ধা তালিকা, মুক্তিযোদ্ধা কোটাসহ আরো কিছু মৌলিক দাবি নিয়ে অবশ্যই আন্দোলনের যৌক্তিকতা রয়েছে । কারণ এসব দাবি জাতীয় ইস্যুরই অংশ । তবে যেহেতু এতদসংক্রান্ত দাবিদাওয়ার ভিত্তিতে আন্দোলনের সাথে বীর মুক্তিযোদ্ধা, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার পক্ষের গণমানুষের সার্বজনীন স্বার্থ জড়িত----ফলে এসব জাতীয় দাবির প্রেক্ষিতে সংগঠিতব্য আন্দোলনের সাথে তাদের সক্রিয় অংশগ্রহণ একান্তই জরুরী । সেক্ষেত্রে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের বিভিন্ন প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠনসহ নেতৃস্থানীয়দের সাথে কোনো প্রকার আলাপ-আলোচনা, শলাপরামর্শ, সমন্বয়, সংযোগ ও যোগাযোগ স্থাপন না-করেই কোনো একটি বিশেষ সংগঠন ও ব্যক্তিবর্গ সংকীর্ণ সত্তায় আবির্ভূত হয়ে মুক্তিযুদ্ধ ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নাম ভাঙিয়ে যে যার মতো রাষ্ট্রশক্তির বিরুদ্ধে বিচ্ছিন্ন ও বিক্ষিপ্ত আন্দোলন করতে গিয়ে বাস্তবসম্মত কারণেই আন্দোলনে হোচট খাবে----এটাই তো স্বাভাবিক । আরেকটি দিক হচ্ছে এই যে, এ-ধরনের তথাকথিত আন্দোলনের অন্তরালে মুক্তিযোদ্ধা/মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের ছদ্মবেশে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা ও তাদের সন্তানরা নিজেদের ভুয়োমি ঢেকে রাখার লক্ষ্যে এ প্রয়াসের সাথে সম্পৃক্ত হয়ে অত্যন্ত কূটকৌশলে আন্দোলনকে বাঞ্চাল করার চক্রান্ত করার সুযোগ পায় । আর এসব অপরিণামদর্শি ও মতলববাজি অপপ্রক্রিয়ায় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের অপমান সংঘটিত হয় । সেক্ষেত্রে বীর মুক্তিযোদ্ধারা এসবের দায় বহন করতে বাধ্য নয় ।

যেহেতু উপরোক্ত জাতীয় দাবিনামার সাথে সব বীর মুক্তিযোদ্ধা, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার স্বার্থ জড়িত, সেহেতু বিশেষ কোনো সংগঠন ও ব্যক্তিবর্গের সংকীর্ণ উচ্চাভিলাষী নেতৃত্ব নির্মাণের সাথে ব্যাপক বীর মুক্তিযোদ্ধা/ সন্তানরা সংগতকারণেই সম্পৃক্ত হতে সম্মত নন । সরকার তথা রাষ্টশক্তির নিকট থেকে উক্ত জাতীয় দাবিদাওয়া আদায় করার আন্দোলনটি হতে হবে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের সর্বসংগঠনের ন্যুনতম কর্মসূচির ভিত্তিতে ব্যাপক, ঐক্যবদ্ধ ও এককেন্দ্রিক একক অথবা যৌথ নেতৃত্বের অধীনে । অন্যথায় আন্দোলন মুখ থুবড়ে পড়তে বাধ্য । তাইতো আমরা ঐ ধরনের বিশেষ বিশেষ সংগঠনের জনসমর্থনহীন, সংকীর্ণ, বিচ্ছিন্ন ও বিক্ষিপ্ত আন্দোলন ব্যর্থতায় পর্যবসিত হতে দেখে আসছি । এবং এ-ধরনের ব্যর্থ আন্দোলনের প্রেক্ষাপটে বৃহত্তর ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের পরিবেশ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে । সংশ্লিষ্ট সবাইকে জাতীয় স্বার্থে এসব বিষয়গুলো অনুধাবন করার জন্যে বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি । সেই সাথে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের বৃহত্তর স্বার্থে মুক্তিযোদ্ধা ও সন্তানদের সব সংগঠনকে একটি ঐক্যবদ্ধ এককেন্দ্রিক আন্দোলন সংঘটিত করার কর্মপদ্ধতি বের করার প্রয়াস গ্রহণ করতে আমি উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি ।

লেখক :চেয়ারম্যান, একাত্তরের মুক্তিযোদ্ধা সংসদ।

পাঠকের মতামত:

২১ এপ্রিল ২০২১

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test