E Paper Of Daily Bangla 71
World Vision
Technomedia Limited
Mobile Version

শীতে আইসক্রিম খাওয়া হতে পারে বিপজ্জনক

২০২৩ ডিসেম্বর ০২ ২০:৩৪:২০
শীতে আইসক্রিম খাওয়া হতে পারে বিপজ্জনক

নিউজ ডেস্ক : শীত এখনো তেমন জাঁকিয়ে বসেনি। তবে বাতাসে শীত শীত ভাব আছে। আর এমন ঠান্ডা-গরম মেশানো পরিবেশেই অনেকে প্রশান্তি পেতে আইসক্রিম খাচ্ছেন।

তবে এ সময় আইসক্রিম খাওয়া ছোট-বড় সবার জন্যই হতে পারে বিপজ্জনক। তাই বিপদ ঘটার আগে সাবধান হওয়া জরুরি। জেনে নিন শীতে আইসক্রিম খেলে কী কী সমস্যা হতে পারে।

সর্দি-কাশি-জ্বর
এই ঋতুতে আইসক্রিম খেলে জ্বর, সর্দি-কাশির সমস্যায় ভুগতে হতে পারে। এমনকি এই ঠান্ডা খাবারের কারণে গলাব্যথা, সাইনোসাইটিস, মাইগ্রেনসহ একাধিক সমস্যায় অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন।

তাই এ সময় যতটা সম্ভব আইসক্রিম এড়িয়ে চলার চেষ্টা করুন। এই নিয়ম মেনে চলতে পারলেই সর্দি, কাশিসহ একাধিক রোগ প্রতিরোধ করতে পারবেন।

আসলে শীতে একাধিক ভাইরাস সক্রিয় হয়ে ওঠে। আর এসব ভাইরাসের খপ্পরে পড়লেই পিছু নিতে পারে ভাইরাল ফিভারের মতো জটিল সমস্যা। তাই এ সময় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বজায় রাখতে কিছু কিছু খাবার এড়িয়ে চলাই ভালো।

রাতের ঘুম কমে যায়
অনেকেই আছেন যারা রাতের খাবার শেষে এক কাপ আইসক্রিম অবশ্যই খান। তবে জানলে অবাক হবেন, শীতের দিনে এই ভুল অভ্যাসে ঘুমের সমস্যা হতে পারে আপনার।

এমনকি এতে থাকা স্যাচুরেটেড ফ্যাট ও অন্যান্য উপাদানের কারসাজিতে ঘুমের মধ্যে ভয়ের স্বপ্নও মনের উপর আঘাত হানতে পারে। তাই শীতের রাতে ভুলেও আইসক্রিম খাবেন না। এই নিয়ম মেনে চললেই ঘুম উবে যেতে পারে।

বাড়তে পারে ওজন
আইসক্রিম হলো ক্যালোরির ভাণ্ডার। এমনকি এতে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট ও চিনি থাকে। তাই নিয়মিত আইসক্রিম খেলে যে ওজনের কাঁটা ঊর্ধ্বমুখী হবে, তা তো বলাই বাহুল্য!

তাই ওজনকে স্বাভাবিক গণ্ডিতে আটকে রাখার ইচ্ছে থাকলে শীত, গ্রীষ্ম, বর্ষা’সহ সব ঋতুতেই আইসক্রিমের লোভ সামলে চলুন। তাতেই উপকার মিলবে হাতেনাতে।

লিভারের সমস্যাও হতে পারে
আমাদের শরীরের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ হলো লিভার। এটি একাধিক জটিল কাজ একা হাতে সামলায়। তবে নিয়মিত আইসক্রিম খেলে কিন্তু এই অঙ্গেও খারাপ প্রভাব পড়ে।

এমনকি এ কারণে পিছু নিতে পারে ফ্যাটি লিভারের মতো অসুখও। তাই যত দ্রুত সম্ভব আইসক্রিমের থেকে দূরত্ব তৈরি করে নিন। তাহলেই লিভারের পাশাপাশি পুরো শরীর ভালো থাকবে।

তথ্যসূত্র : নিউজ ১৮/ এনডিটিভি

(ওএস/এএস/ডিসেম্বর ০২, ২০২৩)

পাঠকের মতামত:

২২ মে ২০২৪

এ পাতার আরও সংবাদ

উপরে
Website Security Test